ইভিএম কারচুপির অভিযোগ নিয়ে উদ্বিগ্ন প্রণব বললেন, সন্দেহ নিরসনের দায় নির্বাচন কমিশনেরই

#নয়াদিল্লি: ইভিএম কারচুপি নিয়ে সরব কংগ্রেস-সহ বিরোধীরা। কমিশনে নালিশ জানানো থেকে দলীয় কর্মীদের ইভিএম পাহারা দেওয়ার মতো পদক্ষেপ করেছে ২২ দলের বিরোধী জোট। তার মধ্যেই বিষয়টি নিয়ে এ বার উদ্বেগ প্রকাশ করলেন প্রণব মুখোপাধ্যায়। ‘‘গণতন্ত্রের ভিত্তি নিয়ে প্রশ্ন ওঠা উচিত নয়’’—মঙ্গলবার দিল্লিতে একটি অনুষ্ঠানে মন্তব্য প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির। তা ছাড়া ইভিএমের সুরক্ষা এবং নিরাপত্তার দায়িত্ব কমিশনের বলেও মন্তব্য করেন প্রণব।

মাত্র চব্বিশ ঘন্টা আগেই নয়াদিল্লিতে এক বই প্রকাশ অনুষ্ঠানে নির্বাচন কমিশনের প্রশংসা করেছিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়-রাহুল গান্ধীরা যখন কমিশনের বিরুদ্ধে পক্ষপাতের অভিযোগ করছেন, তখন প্রণববাবু বলেছিলেন কমিশন ভাল কাজ করছে। এমনকী ইংরেজি প্রবাদ উল্লেখ করে বলেছিলেন, নাচতে না জানলে উঠোন বাঁকা বলা হয়। এটা নতুন কিছু নয়। রাজনৈতিক সূত্রে খবর, এর পরেই বিরোধী শিবিরের নেতারা কথা বলেন প্রণববাবুর সঙ্গে। তাঁর প্রাক্তন রাষ্ট্রপতিকে বলেন, তাঁর গতকালের মন্তব্য সুবিধা করে দিচ্ছে বিজেপি-কে। কমিশন অনিয়ম করেও পার পেয়ে যাচ্ছে। এর পরই মঙ্গলবার দুপুরে একটি বিবৃতি প্রকাশ করে তাঁর অবস্থান জানান প্রণববাবু।

ইভিএম কারচুপি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে প্রণববাবু বলেন, ‘‘জনসাধারণের রায় বিন্দুমাত্রও সন্দেহের ঊর্ধ্বে থাকা উচিত। গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানের প্রতি কঠোর বিশ্বাসী হিসেবে আমার মত, যাঁরা পরিচালনা করেন, তাঁদের উপরই নির্ভর করে প্রতিষ্ঠান কী ভাবে চলবে।প্রতিষ্ঠানগুলির ঐক্য ও সংহতি বজায় রাখার দায়িত্ব নির্বাচন কমিশনের। কমিশনের উচিত সেটা রক্ষা করা এবং সমস্ত সন্দেহ দূর করা।’’