‘জয় শ্রীরাম’ না-বলায় বেধড়ক মারধর, হাসপাতালে ভর্তি তৃণমূল কর্মী

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

#তেহট্ট: ‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনি বিতর্কে শেষ কয়েক দিন সরগরম রাজ্য রাজনীতি। খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জড়িয়েছেন এই বিতর্কে। এ বার জোর করে ‘জয় শ্রীরাম’ বলানোর চেষ্টা করে বিফল হওয়ায় মারধরের অভিযোগ উঠল বিজেপির বিরুদ্ধে। জানা গিয়েছে, গুরুতর আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি এক তৃণমূল কর্মী।

স্থানীয় সূত্রের খবর, নদিয়ায় তেহট্টে আক্রান্ত হয়েছেন অর্জুন হালদার নামে এক তৃণমূল কর্মী। অভিযোগ, ‘জয় শ্রীরাম’ না-বলায় তাঁকে বেধড়ক মারধর করে স্থানীয় বিজেপি সমর্থকরা।

স্থানীয় পার্টি অফিস দেখভালের কাজ করতেন অর্জুন। সকালে পার্টি অফিসের তালা খোলা থেকে শুরু করে রাতে তা বন্ধ করে তবেই বাড়ি ফিরতেন নিত্যদিন। গত বৃহস্পতিবার রাতে যখন তিনি পার্টি অফিস বন্ধ করছিলেন, তখনই না কি এক দন বিজেপি সমর্থক তাঁর উপর চড়াও হয়। তাঁকে ‘জয় শ্রীরাম’ বলতে বলা হয়। কিন্তু অনেক চেষ্টা করেও অর্জুনকে দিয়ে তা বলানো যায়নি। অর্জুন দাবি করেছেন, এর পরই তাঁকে বেধড়ক মারধর করেছেন বিজেপি সমর্থকরা। তেহট্ট থানায় অভিযোগের পর পুলিশ তদন্তে নেমেছে। অন্য দিকে বিজেপির পক্ষ থেকে এই অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে। কৃষ্ণনগরের বিজেপি প্রার্থী কল্যাণ চৌবে জানান, তৃণমূলের যে দেওয়া পিঠ ঠেকে গিয়েছে, এই ঘটনা তারই প্রমাণ।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest