বিষ্ণুপুরে ঢোকার অনুমতি নেই, এবছর ভোট দিতে পারবেন না সৌমিত্র খাঁ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

#দুর্গাপুর: আদালতের নির্দেশে এবছর লোকসভা নির্বাচনে ভোটই দেওয়া হচ্ছে না বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুরের বিজেপি প্রার্থী সৌমিত্র খাঁর। রাতের মধ্যে আদালতের নতুন কোন নির্দেশ না এলে রবিবার, ভোটের দিন নিজের কেন্দ্রে ঢুকবেন না বলেই শনিবার দুর্গাপুরে জানালেন সৌমিত্রবাবু।

তাঁর নির্বাচনী এলাকার বহু জায়গায় বহিরাগতদের আনা হয়েছে। দুর্গাপুরে সাংবাদিক বৈঠকে এমনই অভিযোগ করলেন বিষ্ণপুরের বিজেপি প্রার্থী সৌমিত্র খাঁ। তিনি জানান, পুলিস ও কমিশন- উভয়ের কাছেই লিখিতভাবে এই অভিযোগ জানিয়েছেন তিনি। সৌমিত্র খাঁ এদিন বলেন, প্রতি বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েনের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল  কমিশন। কিন্তু এখনও বহু বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হয়নি। কাল সকাল অবধি বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী না দিলে, মানুষ যদি ভোট দিতে না পারে, তাহলে আন্দোলন করা হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

প্রসঙ্গত, টাকা নিয়ে চাকরি না দেওয়ার অভিযোগে সৌমিত্রর বিরুদ্ধে বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয় বাঁকুড়ার বড়জোড়া থানায়৷ অভিযোগ করেছিলেন তাঁরই পিসতুতো ভাই প্রশান্ত মণ্ডল৷ ঘটনার তদন্ত শুরু করে বাঁকুড়ার বড়জোড়া থানা৷ গ্রেপ্তারি এড়াতে কলকাতা হাই কোর্টে আগাম জামিনের আবেদন করেন সৌমিত্র খাঁ৷ আদালত তাঁর গ্রেপ্তারির উপর স্থগিতাদেশ জারি করে। নির্দেশে বলা হয়, ছ’সপ্তাহের জন্য বাঁকুড়া জেলায় ঢুকতে পারবেন না সৌমিত্র।  হাইকোর্টের এই রায়ের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টেও যান সৌমিত্র খাঁ। কিন্তু সেই একই রায় বহাল রাখে সুপ্রিম কোর্টও। এরফলে শুধুমাত্র পূর্ব বর্ধমানের খন্ডঘোষ বিধানসভা এলাকা ছাড়া আর কোথাও শশরীরে প্রচার করতে যেতে পারেননি বিষ্ণুপুরের বিজেপি প্রার্থী।

আগামিকাল ভোট। বিষ্ণুপুরের ভূমিপুত্র তথা বিজেপি প্রার্থী সৌমিত্র খাঁ নিজের ভোটটি দিতে যেতে পারবেন কিনা, তা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। এই বিষয়ে জিজ্ঞাসা করা হলে সৌমিত্র খাঁ জানান, তিনি আদালতের নির্দেশের জন্য অপেক্ষা করছেন। বলেন, “আমি ভোট দিতে বাঁকুড়ায় যেতে পারব কিনা, তা নিয়ে শনিবার আদালতের নির্দেশিকা আসার কথা থাকলেও, এখনও আসেনি। তাই ভোট দিতে পারব কিনা, জানি না। তবে আদালতের নির্দেশকে সম্মান জানাব।”

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest