আজ ফোকাস-এ

ক্রমশ ভয়াবহ উঠছে পরিস্থিতি করোনা আতঙ্কে লকডাউন বাংলাদেশে

নতুন করে কোভিড-আতঙ্ক যে ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছে, তার প্রমাণ পাওয়া গেল। বাংলাদেশে ঘোষিত হল লকডাউন।
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

নতুন করে কোভিড-আতঙ্ক যে ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছে, তার প্রমাণ পাওয়া গেল। বাংলাদেশে ঘোষিত হল লকডাউন। আওয়ামি লিগ জেনেরাল সেক্রেটারি তথা রোড ট্রান্সপোর্ট এন্ড ব্রিজ দফতরের মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের জানিয়েছেন, বাংলাদেশে নতুন করে ভয়াবহ হয়ে ওঠা করোনা সংক্রমণকে নিয়ন্ত্রণ করার লক্ষ্যে বাংলাদেশ সরকার এখন এক সপ্তাহের লকডাউন ঘোষণা করেছে।

৫ এপ্রিল থেকে শুরু হচ্ছে। তিনি আরও জানিয়েছেন, সমস্ত অফিস-আদালত এই সময়ে বন্ধ থাকবে। তবে শিল্পকলকারখানায় রোটেশন পদ্ধতিতে কাজ করানো হবে। আপাতত এটা করা হচ্ছে, কেননা, এখনই কলকারখানা সব বন্ধ করে দিলে শ্রমিকেরা বাড়ির পথে বেরিয়ে পড়বেন। তাতে হিতে বিপরীত হতে পারে।

আরও পড়ুন: বাংলাদেশে শুরু হল লকডাউন, করোনা বাড়লেও এখনই লকডাউনের কথা ভাবছে না কেন্দ্র

গত সাত মাসের মধ্যে শুক্রবারেই করোনা সংক্রমণের হার সব চেয়ে বেশি ছিল– ২৩.২৮ শতাংশ। এদিন ২৪ ঘণ্টায় ৫০জনের মৃত্যু হয়েছে। লকডাউন সংক্রান্ত অন্যান্য জরুরি ঘোষণা অচিরেই করা হবে বলে জানানো হয়েছে সে দেশের তরফে।

সারা দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ২২৬টি পরীক্ষাগারে ৩০ হাজার ২৯৩টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। অ্যান্টিজেন টেস্টসহ পরীক্ষা করা হয় ২৯ হাজার ৩৩৯টি নমুনা।২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ২৩.২৮ শতাংশ। মোট পরীক্ষায় এ পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ২১ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় মোট মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৪৭ শতাংশ।

এর আগে বৃহস্পতিবার অধিদপ্তর জানায়, আগের ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ছিল ২২.৯৪ শতাংশ।এদিকে, ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাস থেকে সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ৪৭৩ জন। এ নিয়ে দেশে মোট সুস্থ ব্যক্তির সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫ লাখ ৪৭ হাজার ৪১১ জনে। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৭ দশমকি ৬৪ শতাংশ।গত বছরের ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্তের পর ১৮ মার্চ প্রথম একজনের মৃত্যুর কথা জানায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

আরও পড়ুন: বাংলাদেশে শুরু হল লকডাউন, করোনা বাড়লেও এখনই লকডাউনের কথা ভাবছে না কেন্দ্র

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

সম্পর্কিত পোস্ট