ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের জন্য ৫০ হাজার কোটির প্যাকেজ ঘোষণা RBI-এর, কমল রিভার্স রেপো রেট

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

নয়াদিল্লি: করোনাভাইরাসের সঙ্কটকে সামলাতে দেশে লকডাউন চলছে। প্রথম দফার লকডাউন ছিল ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত। ফের দ্বিতীয় দফায় লকডাউন ঘোষণা করা হয় ৩ মে পর্যন্ত। এ রকম একটা পরিস্থিতিতে দেশের অর্থনৈতিক অবস্থার উপর ব্যাপক প্রভাব পড়ছে। এমন সঙ্কটময় মুহূর্তে দেশের অর্থনৈতিক ব্যবস্থা যাতে ভেঙে না পড়ে তার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ করছে কেন্দ্র।

শুক্রবার সকালে সাংবাদিক বৈঠক করেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্নর শক্তিকান্ত দাস। করোনা পরিস্থিতির মোকাবিলায় বেশ কিছু পদক্ষেপের কথা ঘোষণা করেছেন তিনি। তার মধ্যে যেমন রয়েছে ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের জন্য আর্থিক প্যাকেজ, রিভার্স রেপো রেট কমানোর মতো বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ ঘোষণা। তবে তিনি এ দিন জানান, করোনাভাইরাসের জেরে গোটা বিশ্বে যেখানে অর্থনীতি টালমাটাল অবস্থায় রয়েছে  সেখানে জি-২০ দেশগুলোর মধ্যে ভারতের আর্থিক বৃদ্ধির হার সবচেয়ে বেশি। 

আরও পড়ুন:   লকডাউনে বেহাল দেশের অর্থনীতি, আবার আর্থিক প্যাকেজ দিতে মোদীর সঙ্গে বৈঠক নির্মলার

দেশের অর্থনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে ক্ষুদ্র শিল্পের জন্যে আপাতত ৫০ হাজার কোটি টাকার প্যাকেজ ঘোষণা করলেন আরবিআইয়ের গভর্নর। পরিস্থিতি অনুযায়ী এই প্যাকেজের পরিমাণ ভবিষ্যতে আরও বাড়ানো হতে পারে বলেন তিনি। আবাসন শিল্পে ১০ হাজার কোটি টাকার প্য়াকেজেরও ঘোষণা তাঁর। ক্ষুদ্র আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্যে ৫০ হাজার কোটি টাকার আর্থিক প্যাকেজও ঘোষণা করলেন তিনি। তবে এলসিআর প্রয়োজনীয়তা যে ১০০% থেকে হ্রাস পেয়ে ৮০% এ নেমে এসেছে সেকথাও উল্লেখ করেন রিজার্ভ ব্যাংকের গভর্নর।

এদিন ফের একবার রিভার্স রেপো রেট ২৫ বেসিস পয়েন্ট কমানোর কথা জানিয়েছেন শক্তিকান্ত দাস। এর ফলে ৪ বেসিস পয়েন্ট থেকে রিভার্স রেপো রেট কমে দাঁড়িয়েছে ৩.৭৫। তবে অপরিবর্তিত থাকছে রেপো রেট।

আরও পড়ুন:   Lockdown 2.0: খিদে মেটাতে শ্মশানের ‘পচা’ কলা খাচ্ছে পরিযায়ী শ্রমিকরা

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest