‘করোনা-কোরান দু’টোই ভাইরাস’,বিতর্কিত পোস্টার জেরে গ্রেফতার আলিপুরদুয়ারের বিজেপি নেতা

আলিপুরদুয়ার: করোনা ভাইরাস নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় উত্তেজনাপূর্ণ পোস্ট করায় গ্রেফতার করা হল আলিপুরদুয়ার জেলা বিজেপির সাধারণ সম্পাদক রতন তরফদারকে। সোশ্যাল মিডিয়ায় করোনা সংক্রান্ত পোস্টের জেরে গ্রেফতার রাজ্যে এই প্রথম বলে জানা গিয়েছে।

পুলিশ সূত্রে খবর, আলিপুরদুয়ার শহরের বাবুপাড়ার বাসিন্দা রতন তরফদার সোমবার সকালে ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন। ‘করোনা ভাইরাস‘ ও ‘কোরান’ – এই দুটি শব্দকে সম্পর্কিত করে তাঁর এই পোস্ট সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক বিতর্ক তৈরি করে। পোস্টটি ছড়িয়ে পড়তেই কয়েক ঘণ্টার মধ্যে তৎপর হয় আলিপুরদুয়ার পুলিশের সাইবার ক্রাইম থানা। তাঁকে বাড়ি থেকেই গ্রেপ্তার করা হয়।

আরও পড়ুন: West Bengal govt jobs: রাজ্যে ৯৩৩৩ মহিলা-পুরুষ নার্স নিয়োগ, আবেদন ১৩-২৩ মার্চ

ঘটনাটি নিয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করেন জেলার পুলিশ সুপার অমিতাভ মাইতি। তিনি বলেন, “করোনা ও কোরানকে সম্পর্ক করে একটি ভয়ঙ্কর পোস্ট করেন রতন তরফদার। সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ তৎপর হয়। তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এইরকম একটি উত্তেজনাকর পোস্ট আলিপুরদুয়ারে আইন-শৃংখলার অবনতি করতে পারত। নানান সমস্যা তৈরি করতে পারত। সেই কারণে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে।”

আরও পড়ুন: Railways RITES recruitment 2020: শূন্যপদের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ, বেতনক্রম ১ লক্ষ ৪০ হাজার টাকা

এই ঘটনায় জেলা জুড়ে ব্যাপক চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে। ধৃত রতন তরফদার আরএসএসের নেতা। তিনি আলিপুরদুয়ার জেলা বিজেপির সাধারণ সম্পাদকের পদেও রয়েছেন। এই রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বের গ্রেফতারের ঘটনায় বিভিন্ন মহলে শোরগোল পড়ে গিয়েছে। আলিপুরদুয়ার জেলা বিজেপির সভাপতি গঙ্গাপ্রসাদ শর্মা বলেন “পুলিশ অতি সক্রিয় ভূমিকা পালন করেছে। আমরা পুলিশের কাছে কোনও অভিযোগ জানালে সেই অভিযোগ পুলিশ পাত্তাই দেয় না। আর আমাদের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ উঠলে তৎপর হয়ে ওঠে। শাসকদলের অঙ্গুলিহেলনে কাজ করে আলিপুরদুয়ার জেলা পুলিশ।” তাঁর প্রশ্ন, ‘তৃণমূলের বিরুদ্ধে এই ধরণের অভিযোগ উঠলে পুলিশকে খুঁজে পাওয়া যায় না কেন?’