‘অনেক সেলিব্রিটিই করোনা এনেছেন’, বিগবি প্রসঙ্গে দিলীপ-বচন

করোনা থাবা বসিয়েছে খোদ অমিতাভ বচ্চনের শরীরে। রেহাই পাননি বিগ-বি পুত্রও। এবার সেই প্রসঙ্গেই বিতর্কিত মন্তব্য করে বসলেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। বললেন, “অনেক সেলিব্রিটিই একসময় করোনা নিয়ে এসেছেন।” পাশাপাশি, অমিতাভ বচ্চনের সুস্থতাও কামনা করেন তিনি।

প্রতিদিনের মতোই রবিবার সকালেও প্রাতঃভ্রমণে বেরিয়েছিলেন বিজেপি সাংসদ দিলীপ ঘোষ। গিয়েছিলেন ইকো পার্কে। এদিন সেখান থেকেই একাধিক ইস্যুতে তৃণমূলকে বেঁধেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। আন্দোলনে নামার হুঁশিয়ারিও দেন। এরপরই অমিতাভ বচ্চনের অসুস্থতা প্রসঙ্গে গোটা বিনোদন জগৎকে দায়ী করেন তিনি। বলেন, “অমিতাভ বচ্চন বয়স্ক মানুষ। প্রথম দিকে অনেক সেলিব্রিটিই নিয়ে এসেছেন করোনা। এখন একটা সার্কেলে ঢুকে যাচ্ছে। ওনার সুস্থতা কামনা করি।” দিলীপ ঘোষের এই মন্তব্য ভালভাবে নেননি অনেকেই।

আরও পড়ুন : মা-মরা সিংহ ছানাকে ‘দত্তক’ নিল শিম্পাঞ্জি ! মাতৃস্নেহে দুধ খাইয়ে খেল চুমু, দেখুন–

প্রতিদিনের মতোই তৃণমূলকে একহাত নিয়ে দিলীপ বললেন, “দুর্নীতিতে তৃণমূল কর্মীদের দল থেকে বহিষ্কার আসলে আইওয়াশ। একজন খেয়ে নিয়েছে আরেকজন খাওয়ার কল।”তিনি আরও বলেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দল ও প্রশাসনকে এক করে ফেলছেন। মুখ্যমন্ত্রীর চেয়ারে বসে সমালোচনা করছেন প্রধানমন্ত্রীর। রীতিনীতির ধার ধারচ্ছেন না। পরিকল্পিতভাবে আমফানের ত্রাণ লুঠ করা হচ্ছে। আমফানের ত্রাণ এবং দুর্নীতি নিয়ে গণ আন্দোলনে নামবে বিজেপি বলে হুঁশিয়ারি দেন দিলীপ ঘোষ। শুধু আন্দোলন নয়, আদালতে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

সিপিএমকেও এদিন একহাত নেন তিনি। দিলীপ বলেন, “সিপিএম যুবদের এনেও কোনও লাভ করতে পারবে না । দলকে ত্যাগ করেছে মানুষ। রাজ্যে হিংসার জনক সিপিএম।” ইউজিসি-র সিদ্ধান্ত নিয়ে দিলীপের যুক্তি, গোটা দেশে পরীক্ষা হলে এ রাজ্যের পড়ুয়ারা বঞ্চিত হবে কেন? অভিভাবকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, এই সরকারের হাতে ছেলেমেয়র হাতে ভবিষ্যত ছাড়বেন না।

আরও পড়ুন : LAC-তে কোনও বাফার জোন নয়, টহলদারি বন্ধ করল ভারত ও চিন