ডনের ঘরেও হানা ! করোনা পজিটিভ দাউদ ইব্রাহিম, আক্রান্ত স্ত্রী মেহজাবিনও

ওয়েব ডেস্ক: করোনা আক্রান্ত ১৯৯৩ সালে মুম্বই বিস্ফোরণের মূল অভিযুক্ত দাউদ ইব্রাহিম (Dawood Ibrahim)? কুখ্যাত আন্ডারওয়ার্ল্ড ডন ও তার স্ত্রী মেহেজবানের (Mehjabeen) করোনা (Coronavirus) রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে বলে দাবি এদেশেরই এক ইংরেজি সংবাদমাধ্যমের। আরও জানা গেছে, সস্ত্রীক দাউদ ছাড়াও করোনা আক্রান্ত হয়েছে মাফিয়া ডনের একজন ব্যক্তিগত দেহরক্ষী এবং কর্মীও। করাচির এক হাসপাতালে দাউদ ও তার স্ত্রী ভর্তি বলেও জানা গেছে। সরকারের শীর্ষ সূত্রকে উদ্ধৃত করে এমনই দাবি করেছে ওই সংবাদমাধ্যম।

আরও পড়ুন: অস্বস্তি বাড়িয়ে আমেরিকার বিক্ষোভে শামিল ট্রাম্প কন্যা টিফানি, জানুন অন্দরের খবর

করাচির সেনা হাসপাতালে ভর্তি দাউদ, কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে দাউদের বডিগার্ড।২০১৭ সালে খবর ছড়ায় দাউদ অসুস্থ। কিন্তু সেইসময় পুলিশের জেরায় ডনের ভাই কাসকর  দাবি করে, পুরোপুরি সুস্থ দাউদ। জেরায় কাসকর এও জানিয়েছিল, নিরাপত্তা নিয়ে পাকিস্তানে ঘুরে বেড়াচ্ছে দাউদ! পাক গুপ্তচর সংস্থা ইন্টার-সার্ভিসেস ইনটেলিজেন্স (আইএসআই)-এর কাছে দাউদের আক্রান্ত হওয়ার খবর ছিলই। করাচির সেনা হাসপাতালে তাঁদের রাখা হয়েছে। 

দিল্লির একটি সূত্রকে উদ্ধৃত করে দাউদ ও তাঁর স্ত্রীর করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছে একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম। বলা হয়েছে, পাক গুপ্তচর সংস্থা ইন্টার-সার্ভিসেস ইনটেলিজেন্স (আইএসআই)-এর কাছে দাউদের আক্রান্ত হওয়ার খবর ছিলই। করাচির সেনা হাসপাতালে তাঁদের রাখা হয়েছে। 

১৯৯৩-এর মুম্বই হামলার মূল চক্রী দাউদ ইব্রাহিম আদতে মুম্বইয়ের বাসিন্দা হলেও, বেশ কয়েক দশক ধরে সপরিবারে পাকিস্তানে গা ঢাকা দিয়ে রয়েছেন তিনি। যদিও সে সম্পর্কে নিশ্চিত ভাবে কিছু জানায়নি ইসলামাবাদ। ২০০৩ সালে ভারত ও রাষ্ট্রপুঞ্জ  দাউদ ইব্রাহিমকে আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদী ঘোষণা করে।

জানুয়ারির শেষ দিকে ভারতে নোভেল করোনা হানা দিলেও, পড়শি দেশ পাকিস্তানে তার প্রভাব কিছুটা দেরিতেই পড়ে। গত ২৬ ফেব্রুয়ারি সেখানে প্রথম করোনা আক্রান্তের হদিশ মেলে। তবে গত দু’সপ্তাহে সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা হঠাৎ করেই বৃদ্ধি পেয়েছ। শুক্রবার পর্যন্ত সেখানে ৮৯ হাজার ২৪৯ জন কোভিড-১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

আরও পড়ুন: করোনা সারাতে পারে ব্যথা কমানোর ওষুধ আইবুপ্রোফেনে, শুরু ট্রায়াল

Gmail