WB Board Exam Update: মাধ্যমিক-উচ্চমাধ্যমিক নিয়ে আপনার মতও জানতে চায় রাজ্য, দেওয়া হল ইমেল আইডি

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

চলতি বছরের মাধ্যমিক পরীক্ষা হওয়া উচিত কি উচিত নয়, তা নিয়ে এবার মতামত জানতে চাইল রাজ্য সরকার। অভিভাবক, পড়ুয়া অথবা সাধারণ মানুষ মতামত দিতে পারেন। আগামীকাল সোমবার ২ টোর মধ্যে ইমেল করে মতামত জানাতে হবে। [email protected] [email protected] , [email protected] এই তিন মেল আইডিতে মেল মারফত জানানো যাবে মতামত।

করোনা পরিস্থিতিতে পরীক্ষা হওয়া উচিত কি উচিত নয়? পরীক্ষা হলে কীভাবে পরীক্ষা? না হলে কীভাবে হবে মূল্যায়ন?  এখনও তা নিয়ে কোনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। আজ, রবিবার স্কুল শিক্ষা দফতরের প্রধান সচিব মণীশ জৈন একটি নির্দেশিকা জারি করেন।

আরও পড়ুন : ক্যানসারে মারা গিয়েছেন মাহুত, হাতির শেষ শ্রদ্ধা দেখে চোখের জলে ভাসল নেটিজেনরা

এদিকে করোনা আবহে পরীক্ষা নিয়ে রাজ্য সরকার ৬ সদস্যের বিশেষজ্ঞ কমিটি তৈরি করেছে। সূত্রের খবর, করোনা আবহে পরীক্ষা নেওয়া উচিত হবে না, এমনই মতামত দিয়েছে কমিটি । কারণ হিসেবে বলা হয়েছে, আসতে পারে করোনার তৃতীয় ঢেউ। আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা আছে শিশুদেরও। যে বয়সের ছাত্রছাত্রীরা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা দেবে তাদের ভ্যাকসিনেশনই হয়নি।

এদিন এই বিষয়ে ট্যুইট করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ট্যুইটারে তিনি লিখেছেন, শিশুদের ভবিষ্য়ৎই আমার কাছে প্রাধান্য পাবে। কীভাবে মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা নেওয়া যায় তা সিদ্ধান্ত নিতে আমরা একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি তৈরি করেছি। এবার সমাজের বিভিন্ন স্তরের মানুষ যেমন অভিভাবক, পড়ুয়া, সাধারণ মানুষ এই বিষয়ে মতামত জানাতে পারবেন।

কিন্তু, প্রশ্ন হল, শেষ অবধি মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক না হলে, পরীক্ষার্থীদের মূল্যায়ন হবে কীভাবে? সূত্রের খবর, একাধিক প্রস্তাব উঠে এসেছে বিশেষজ্ঞ কমিটির মধ্যে। উচ্চ মাধ্যমিকের ক্ষেত্রে পরীক্ষার্থীদের বাড়িতে বসিয়ে হোম অ্যাসাইনমেন্ট দিয়ে মূল্যায়নের কথা ভাবা হচ্ছে।এবছর উচ্চ মাধ্যমিকে যাঁদের বসার কথা, তাঁদের বিজ্ঞান বিভাগে ৩০ নম্বর প্র্যাকটিক্যাল এবং কলা ও বাণিজ্যে ২০ নম্বরের প্রজেক্টের নম্বর জমা পড়েছে সংসদের কাছে। এবারের উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের বিগত একাদশ শ্রেণির বার্ষিক অসম্পূর্ণ পরীক্ষার ফলও নজরে আছে কমিটির। মাধ্যমিকের ক্ষেত্রে ১০ নম্বরের অভ্যন্তরীণ মূল্যায়ন এবং নবম শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষার রেজাল্ট মাথায় রাখা হচ্ছে। সরকারি সূত্রের খবর, বিশেষজ্ঞ কমিটি তাদের রিপোর্ট পেশের পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে নবান্ন। এবার সাধারণ মানুষের মতামতের জন্য দরজাও খুলে দিল সরকার।

আরও পড়ুন : Bhatpara: ফের ভাটপাড়ায় ব্যাপক বোমাবাজি, উড়ে গেল মাথার খুলি, শাসক–বিরোধী তরজা

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest