Fighter Kissing Scene: Air Force Officer Sends Legal Notice To 'Fighter' Makers Over Kissing Scene

Fighter Kissing Scene: বায়ুসেনার পোশাকে ভিজে চুমু হৃতিক-দীপিকার! আইনি ঝামেলায় জড়াল ফাইটার

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

মুক্তির দুই সপ্তাহের মধ্যেই আইনি বিপাকে হৃতিক-দীপিকার ‘ফাইটার’ (Fighter Movie)। শোনা গিয়েছে, ছবির নির্মাতাদের বিরুদ্ধে আইনি নোটিস পাঠিয়েছেন বায়ুসেনারই এক অফিসার। ছবিতে হৃতিক ও দীপিকার একটি চুম্বনের দৃশ্য রয়েছে। তাতেই আপত্তি এই অফিসারের।

ফাইটার ছবিতে স্কোয়াড্রন লিডার মিনি রাঠোরের চরিত্রে অভিনয় করেছেন দীপিকা পাড়ুকোন। অন্যদিকে স্কোয়াড্রন লিডার শামসের পাঠানিয়ার চরিত্রে ধরা দিয়েছেন হৃতিক রোশন। এই ছবিতে তাঁদের ব্যক্তিগত জীবনের কথা থেকে পেশাগত জীবনের নানা দিককে তুলে ধরা হয়েছে। উঠে এসেছে উড়ি হামলা, বালাকোট সহ একাধিক ঘটনার কথাও। কিন্তু এই সবের মাঝে এই ছবিতে ভারতীয় বায়ুসেনার পোশাকে হৃতিক এবং দীপিকার একটি চুম্বনের দৃশ্য আছে। সেটা নিয়েই শুরু হয়েছে ঝামেলা। এতে ভারতীয় বায়ুসেনার গৌরব ক্ষুন্ন হয়েছে। তাই এই ছবির প্রযোজনা সংস্থা আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

ওই অফিসার দাবি করেছেন যে, ছবিতে মিলিটারি পোশাক পরে থাকাকালীন চরিত্রগুলি চুম্বনের দৃশ্য চিত্রিত করা উচিত হয়নি। কারণ এটি ইউনিফর্মের সঙ্গে যুক্ত মর্যাদা এবং সম্মানের প্রতি অসম্মানজনক।

দেশপ্রেম, অ্যাকশন, হৃতিক-দীপিকা ম্যাজিক! এত কিছু থাকা সত্ত্বেও বক্স অফিসে কামাল দেখাতে পারেনি সিদ্ধার্থ আনন্দ পরিচালিত ‘ফাইটার’। ২৫ জানুয়ারি অর্থাৎ সাধারণতন্ত্র দিবসের ঠিক আগে মুক্তি পেয়েছিল ছবিটি। অথচ ২৫০ কোটি টাকা বাজেটের ছবিটি এখনও পর্যন্ত মাত্র ২৮৫ কোটি টাকার ব্যবসা করতে পেরেছে। ছবির এমন ব্যবসা দেখে মন খারাপ পরিচালক সিদ্ধার্থ আনন্দের। সংবাদমাধ্যমে প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে তিনি বলেন, “এরকম ব্যবসা করবে ছবিটা বুঝতে পারিনি। হয়তো কোথাও একটা ভুল হয়ে গিয়েছে। এই ছবির মধ্যে বিনোদনের সব কিছু ছিল, তবুও দর্শকদের পছন্দ হল না।”

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest