জয়ের মুকুট বাঙালির মাথায়!কিং খানের ভূতের গল্প তৈরির প্রতিযোগিতায় জয়ী কলকাতার অভিজিৎ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

কলকাতা: নতুন প্রজন্মকে উৎসাহ দিতে শাহরুখ খান শুরু করেছিলেন ‘স্পুক এসআর কে প্রতিযোগিতা’। ভূত নিয়ে এই প্রতিযোগিতায় শাহরুখ আর তাঁর বিচারকমণ্ডলীকে ভয় দেখাতে পারলেই আপনার ফোনে হোয়াটসাঅ্যাপ কলে হাজিরা দেবেন স্বয়ং শাহরুখ, গল্প করবেন এই প্রতিযোগিতায় জয়ীদের সঙ্গে। ‘রেড চিলিজ’-এর এই প্রতিযোগিতায় নিয়মও ছিল বেশ কড়া। লকডাউন মেনে বাড়ির বাইরে যাওয়া যাবে না। পরিচালককেও অভিনয় করতে হবে। শাহরুখ লিখেছিলেন, “ভাল ভূতের ছবি কে না পছন্দ করে?”

শাহরুখের এই চ্যালেঞ্জ লুফে নিলেন কলকাতার মানিকতলার যুবক অভিজিৎ অশোক পাল। বরোদায় আর্ট কলেজের ছাত্র অভিজিৎ চিত্রকলা নিয়ে পড়াশোনা করলেও ফিল্ম মেকিং, অ্যানিমেশনের প্রতি তাঁর প্যাশন তাঁকে চলচ্চিত্রমুখী করে তোলে। “বাড়িতেই আমার দাদার দুই ছেলে, ৫ বছরের জোয়ার আর সাড়ে ৩ বছরের ফাগুনকে দিয়ে অভিনয়ের কথা ভাবি। দাদাকে ক্যামেরা ধরতে অ্যাঙ্গেল শেখাই। তারপর কিছুটা মোবাইল আর কিছু ক্যামেরা দিয়ে শুট করি”,বললেন অভিজিৎ।

আরও পড়ুন: নার্গিসের জন্মদিনে বিশেষ ভিডিও শেয়ার করলেন সঞ্জয় দত্ত, বললেন, আজ মিস করি তোমাকে…

image

হাতে সাত দিন মাত্র সময় ছিল তাঁর। এক পেন্সিল নিয়ে লিখে ফেললেন গল্প। বাচ্চা আর তার আঁকা শেখার মাস্টারমশাইকে ঘিরে পেনসিল ভূত হল, নাকি বাচ্চার আঁকা ছবিই শিক্ষককে ভূত হয়ে ভয় দেখিয়ে দেখাল? সেটা দেখার জন্য দেখতে হবে পনেরো মিনিটের ‘পেন্সিল।’ নিজেই এডিট করে কপিরাইট অনুসারে মিউজিক বসিয়ে রেড চিলিজ-এর কাছে শর্টফিল্ম পাঠিয়ে দেন অভিজিৎ।

কাল রেড চিলিজ-এর পক্ষ থেকে মেল এসে পৌঁছয় অভিজিতের মানিকতলার বাড়িতে। আকাশের চাঁদ ছোয়ার মতো আনন্দ পরিবারে। মেলে জানানো হয়, ‘এস আর কে স্পুক’ প্রতিযোগিতায় কিছু সংখ্যক জয়ীর সঙ্গে অভিজিৎও জয়ী হয়েছেন।

image

 এ বার কিং খানের মুখোমুখি হওয়ার অপেক্ষায় মানিকতলার অভিজিৎ।

আরও পড়ুন: চিরসবুজ…চিরনতুন…শুভ জন্মদিন মেরিলিন মনরো, রইল কিছু অদেখা ছবি…

Gmail 3

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest