Pavel’s shares his new movie ‘Kolkata Chalantika’s first look poster

সবকিছু বিসর্জনে না যাওয়াই ভালো, ‘কলকাতা চলন্তিকা’র পোস্টারে বার্তা পাভেলের

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

মুক্তি পেল পাভেলের (Pavel) নতুন ছবি “কলকাতা চলন্তিকা” এর প্রথম পোস্টার। ৩১ মার্চ ২০১৬, শহর কলকাতার ব্যস্ত সময়ে আচমকাই ভেঙে পড়েছিল পোস্তা উড়ালপুল। মুহূর্তের মধ্যে প্রাণ হারিয়েছিলেন অনেকেই। সেই উড়ালপুল ভেঙে পড়ার ঘটনা নিয়েই পাভেলের এই ছবি।

ছবির চিত্রনাট্য এবং সংলাপ লেখা পাভেলের। গল্প লিখেছেন অধ্যাপিকা স্বাতী বিশ্বাস এবং পাভেল। বেহালা, জোকা, পার্কস্ট্রীট, নিমতলা, হাওয়া ব্রিজ থেকে শুরু করে গোটা শহর জুড়ে রিয়েল লোকেশনে ছবির শ্যুটিং হয়েছে। ছবিতে অপরাজিতা আঢ্যকে এক পুলিশ কনস্টেবলের চরিত্রে দেখা যাবে। অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করছেন শঙ্কর দেবনাথ, খরাজ মুখোপাধ্যায়, রজতাভ দত্ত, তোতোন, বিশ্বরূপ বিশ্বাস, অমলকান্তি দাস, অনির্বাণ চক্রবর্তী (প্রফেসর শিবাজী মুখোপাধ্যায়ের চরিত্রে), কিরণ দত্ত (বং গাই-এক আইটি কর্মীর চরিত্রে দেখা যাবে), শতাব্দী চক্রবর্তী, সৌরভ দাস(ছবিতে ওর চরিত্রের নাম বাইচুং), ঈশা সাহা, দিতিপ্রিয়া রায় (ভবানীপুরের টমবয়ের চরিত্র)।

একাধিক মানুষের গল্পকে একই সুতোয় বেঁধেছেন পরিচালক। সেই গল্পগুলির সূত্রধর হিসাবে দেখা যাবে কিরণ দত্তকে। ছবিতে সংংগীত পরিচালনা করবেন রণজয় ভট্টাচার্য।  ছবির ট্যাগলাইন ‘সবকিছু বিসর্জনে না যাওয়াই ভালো’।

ছবির পোস্টারে দেখা যাচ্ছে, একটি উড়ালপুল ভেঙে পড়েছে, সেই উড়ালপুলের উপরে দেখা যাচ্ছে লালবাজার, ভিক্টোরিয়া, শহিদ মিনার, দক্ষিনেশ্বরের মন্দির, বেলুর মঠ। বোঝাই যাচ্ছে সবকটা জায়গাই কলকাতার প্রতীকি। একটা উড়ালপুলের ভেঙে পড়ায় যেভাবে থমকে গিয়েছিল কলকাতার জনজীবন তাই তুলে ধরতে চেয়েছেন পরিচালক। পোস্টারে দেখা যাচ্ছে উড়ালপুলের নিচে অসংখ্য ট্যাক্সি, গাড়ি, বাস আর সামনে রাখা একটি হাতে টানা রিক্সা। পোস্তা উড়ালপুলের নিচে চাপা পড়ে গিয়েছিল অসংখ্যা গাড়ি, প্রাণ হারিয়েছিলেন বেশ কিছু রিক্সা চালক। এক অর্থে সেদিনের দুর্ঘটনায় বিপর্যস্ত কলকাতার সার্বিক চিত্রই ধরা পড়ল পোস্টারে। পরিচালক পাভেলের কথায়, “এই গল্পটায় শহর কলকাতার তিন দিনের জীবন উঠে আসবে। প্রথম দিন সে নিজের ছন্দে ছুটে চলে বিভিন্ন অলি গলি পথে, দ্বিতীয় দিনে তার পথে ভেঙে পড়ে একটা ফ্লাই ওভার। সব ওলট পালট হয়ে যায়। তৃতীয় দিনে সে আবার ধীরে ধীরে পুরনো ছন্দে ফিরতে শুরু করে।”

ছবিটি মুক্তি পাবে ‘বাবা ভূতনাথ এন্টারটেনমেন্ট’এর ব্যানারে। প্রযোজনায় শতদ্রু চক্রবর্তী। আগামী পয়লা বৈশাখে ছবিটি মুক্তি পাবে।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest