এবার আত্মজীবনী লিখছেন সইফ আলি খান, ঘোষণা হতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোলের বন্যা

বছর, তখন নিজের চতুর্থ সন্তানের প্রতীক্ষা করছেন সইফ আলি খান (Saif Ali Khan)। নিজের ঘটনাবহুল জীবনের কাহিনি আত্মজীবনীতে তুলে ধরছেন সইফ। এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোলড অভিনেতা।

সর্বভারতীয় প্রকাশনা সংস্থা হার্পারকলিন্স ইন্ডিয়ার তরফ থেকে এক আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দিয়ে জানানো হয়েছে এই আত্মজীবনীকে হাতে পেতে আর কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে ভক্তদের । অক্টোবর ২০২১ থেকে ভক্তদের বইয়ের তাকে শোভা পেতে পারবে নবাব পুত্রের আত্মজীবনী ।

একটি বিবৃতিতে সইফ জানিয়েছেন , আমাদের জীবনের বহু স্মৃতি থাকে , বহু সময় থাকে যেগুলি সংরক্ষণ না করলে একসময় হারিয়ে যায় । সেই কারণেই আত্মজীবনীতে নিজের অনেক অভিজ্ঞতা , অনেক অজানা কথা লিখে যেতে চান এই জনপ্রিয় বলি অভিনেতা । তাঁর মতে মাঝেমধ্যে নিজের জীবনের পুরোনো ফেলে আসা অধ্যায় গুলোর দিকে খানিকটা স্বার্থপরের মতোই তাকিয়ে থাকতে , সেখানকার কিছু স্মৃতি মেলে ধরতে , উপভোগ করতে বড়ো ভালো লাগে । আশা করি পাঠকদের আমার এই প্রয়াস ভালো লাগবে ‘।

আরও পড়ুন: ‘সত্যি বলার জন্য’ মীরাক্কেল থেকে বাদ! শ্রীলেখার জায়গায় ২ অভিনেত্রীকে ঘিরে জল্পনা…

দিল চাহতা হায় , কাল হো না হো -র শহুরে ছেলের চরিত্র থেকে শুরু করে ওমকারা -র গ্যাংস্টার বা সাম্প্রতিক নেটফ্লিক্সের স্যাক্রেড গেমস এর পুলিশ অফিসার চরিত্র , দীর্ঘ তিন দশকের অভিনয় জীবনে কমার্শিয়াল থেকে ভিন্ন ঘরানার ছবি , সবেতেই সাবলীল ছিলেন সইফ ।

প্রকাশনা সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে,এই বইতে সইফ একদম তাঁর নিজস্ব সিগনেচার ভঙ্গিমায় , মজার চলে , তাঁর সারাজীবনের একাধিক অভিজ্ঞতার কথা , নিজের পরিবার , সাফল্য , ব্যর্থতা , উৎসাহ ইনস্পিরেশনের কথা ভাগ করে নিয়েছেন পাঠক অনুরাগীদের দরবারে । সংস্থার সম্পাদক বুশরা আহমেদ বইটির ভূয়সী প্রশংসা করে সেটিকে মজার , তথাকথিত সামাজিক ধৃষ্টতার সীমা লঙ্ঘনকারী আবার প্রতিফলন সমন্বিত বলে উল্লেখ করেন । তাঁর মতে, ‘ সইফ এই যুগের খুব কম সংখ্যক অভিনেতাদের মধ্যে একজন যিনি নিয়মিত নানা বিষয় নিয়ে পড়াশোনা করেন , চর্চা করেন । তাঁর অভিনয়ে এর ছাপ দেখা যায় । তাঁর সিনেমা বরাবরই আমাকে আনন্দ দিয়েছে । আমি রীতিমতো উচ্ছসিত সইফের এই সিদ্ধান্তে ‘, জানান বুশরা ।

সইফের আত্মজীবনীর খবর প্রকাশ্যে আসতেই তার বিরুদ্ধে সরব হয়েছে নেটদুনিয়ার একাংশ। সইফের আত্মজীবনীকে নেপোটিজমের চূড়ান্ত দলিল আখ্যা দিয়েছেন অনেকে।  সেই সঙ্গে মিম তৈরি হয়।

আরও পড়ুন: COVID আক্রান্ত ম্যানেজার, কোয়রান্টিনে গেলেন অভিনেতা- সাংসদ দেব