‘সত্যি বলার জন্য’ মীরাক্কেল থেকে বাদ! শ্রীলেখার জায়গায় ২ অভিনেত্রীকে ঘিরে জল্পনা…

বাংলা টেলিভিশনের অন্যতম নামী অনুষ্ঠান ‘মীরাক্কেল’। সেখানে বিচারকের আসনে পরাণ, রজতাভ, শ্রীলেখাকে দেখতেই অভ্যস্ত বাঙালি। আর বিচারকের সঙ্গে মীরের মজা, মশকরার আমেজ নিয়েই এতদিন চলেছে ‘মীরাক্কেল’। এবার সেই বিচারকের আসনেই বড় রদবদল! শ্রীলেখা মিত্র এবার ‘মীরাক্কেল’ এর বিচারকের ভূমিকা থেকে বাদ পড়ছেন।

সোমবার দুঃখপ্রকাশ করে টলিউড নায়িকা নিজেই ফেসবুকে জানিয়েছেন এই খবর। যদিও সংশ্লিষ্ট পোস্টে শোয়ের নামোল্লেখ করেননি তিনি। তবে, কমেডি শো থেকে বাদ পড়ার কথা বলতেই দর্শকদের কারও আর বুঝতে বাকি নেই যে, এই পোস্ট ‘মীরাক্কেল’কে নিয়েই।

তা কী এমন ঘটল যে জনপ্রিয় টেলিভিশন চ্যানেলের এই খ্যাতনামা কমেডি শো থেকে বাদ পড়লেন শ্রীলেখা? নেপথ্যের কারণ নিয়ে অবশ্য মুখ খুলতে নারাজ অভিনেত্রী। সোমবার ফেসবুক পোস্টে তিনি জানিয়েছেন, “আমাকে ছাড়াই জনপ্রিয় কমেডি শো শুরু হতে চলেছে। এভাবেই বোধহয় সত্যি কথা বলার দাম চোকাতে হল!…” শ্রীলেখার কথায়, ‘মীরাক্কেল’ তাঁর জন্য ভীষণ ইমোশনাল একটা জার্নি। “দীর্ঘ কয়েক বছর ধরেই এই শোয়ের অংশ ছিলাম আমি। খুব খারাপ লাগল যে, টিমের কেউই আমাকে জানালেন না বিষয়টা। আমি আনঅফিশিয়ালি লোকমুখে শুনলাম। কষ্ট হচ্ছে। এই কমেডি শো নিশ্চয় চলবে, কিন্তু আমি নিজেকে গুটিয়ে নিয়েছি”, মত শ্রীলেখার।

আরও পড়ুন: COVID আক্রান্ত ম্যানেজার, কোয়রান্টিনে গেলেন অভিনেতা- সাংসদ দেব

মাস কয়েক আগে নেপোটিজম বিষয়ে রীতিমতো বিস্ফোরক মন্তব্য করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন টলিউডে স্বজনপোষণ রয়েছে এবং তিনি একাধিকবার তার শিকার হয়েছেন। শ্রীলেখার অভিযোগের নিশানায় ছিলেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়, ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত, সৃজিত মুখোপাধ্যায় এবং স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়।আর তারপরেই স্বস্তিকা একটি স্টেটাস দিয়েছিলেন। যেখানে তিনি বলেছিলেন প্রত্যেক অভিনেতাকেই নিজের খামতি বুঝতে হয়। সেই প্রসঙ্গ টেনে এনে স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করে শ্রীলেখা লিখেছেন, “আর তুমি ঠিক বলেছিলে। আমি আমার খামতি বুঝি। আমার শত্রুদের এবার একটা পার্টি হবে।”

এবার প্রশ্ন, শ্রীলেখা মিত্র বিচারকের আসন থেকে সরলে, টলিউডের কোন অভিনেত্রীকে দেখা যাবে সেই আসনে? এক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, শোয়ের প্রযোজনা সংস্থার ঘনিষ্ঠ সূত্র বলছে শ্রীলেখার পরিবর্তে ‘মীরাক্কেল’-এ দেখা যেতে পারে স্বস্তিকা মুখোপাধ্যায় (Swastika Mukherjee), নুসরত জাহান (Nusrat Jahan) কিংবা পাওলি দামকে (Paoli Dam)। তবে চ্যানেলের পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানানো হয়নি এখনও।

আরও পড়ুন: ‘অকাল বোধন’! মহিষাসুরমর্দিনী রূপে সামনে এলেন মিমি…