বউ পেটানোর অভিযোগ, গ্রেফতার ‘ইয়ে রিস্তা কেয়া কহলাতা হ্যায়’ খ্যাত ‘নৈতিক’

২০১২ সালে নিশা রাওয়ালের সঙ্গে সাত পাকে বাঁধা পড়েছিলেন করণ। এর আগে দীর্ঘ ৬ বছর ধরে প্রেম সম্পর্কে আবদ্ধ ছিলেন তাঁরা।
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

স্ত্রী নিশা রাওয়ালের সঙ্গে চিড় ধরেছে করণের দাম্পত্য সম্পর্কে, এমন গুঞ্জন গত কয়েক দিন ধরেই ঘুরে বেড়াচ্ছিল। এর মাঝেই সোমবার গভীর রাতে আচমকা গোরেগাঁও পুলিশের হাতে গ্রেফতার হলেন ‘ইয়ে রিস্তা কেয়া কহেলাতা হ্যায়’ খ্যাত অভিনেতা। স্ত্রী নিশা রাওয়ালকে মারধরের অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছে এই টেলিভিশন তারকাকে, জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা এএনআই।

গার্হস্থ্য হিংসার আওতায় করণের বিরুদ্ধে মামলা রুজু করেছে মুম্বই পুলিশ।নিশা তাঁর অভিযোগের কপিতে জানিয়েছেন, শুরুতে দুজনের কথাকাটাকাটি হয়, পরে করণ তাঁকে মারধর করেন। করণের উপর ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৩৬,৩৩৭,৩৩২,৫০৪ এবং ৫০৬ ধারায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। গ্রেফতারির পর আজ আদালতে তোলা হলে জামিনে মুক্তি পান করণ। ৯ বছরের দাম্পত্য সম্পর্ক নিশা-করণের, তার ছয় বছর আগে থেকে শুরু এই জুটির প্রেম কাহিনি। তবে গত কয়েকমাস ধরেই দুজনের দাম্পত্য সম্পর্কে চিড় ধরবার খবর প্রকাশ্যে আসছিল। কিন্তু গোটা ঘটনা যে এমন মোড় নেবে তা ঘুণাক্ষরেও কল্পনা করেননি অনুরাগীরা।

জামিনে মুক্ত হয়ে স্ত্রীর আনা অভিযোগ খারিজ করে, নিশার বিরুদ্ধেই একের পর এক চাঞ্চল্যকর অভিযোগ আনলেন করণ। ঠিক কী হয়েছিল সোমবার রাতে? করণের কথায়, ‘আমাদের বিয়ের সম্পর্কটা খুব আলগা হয়ে গেছে গত কয়েক মাসে, আমরা চেষ্টা করছিলাম বিষয়টা মিটিয়ে নিতে। গত কয়েক দিন আগেই আমরা দুজনে মিলে ঠিক করেছিলাম পরস্পরের সম্মতিতে আমরা বিচ্ছেদ নেব, এবং আমাদের সন্তানের যেন কোনও সমস্যা না হয় সেই বিষয়টা খেয়াল রাখব। গতকাল (৩১ মে) আমরা আর্থিক বিষয়টা নিয়ে আলোচনা করছিলাম। সেখানেই বেশকিছু ক্ষেত্রে আমাদের মতের অমিল হয়। ও অনেক বেশি খোরপোষ চাইছিল, আমার পক্ষে সেটা দেওয়া সম্ভবপর নয় তা আমি সাফ জানিয়ে দিই। আমি বোঝানোর চেষ্টা করি এখনও অতিমারী চলছে, কাল কী হবে আমি নিজেই জানি না। তবে ছেলের কোনও সমস্যা হোক সেটা আমি চাই না’। করণ জানান এই আলোচনার পরেই নিশা ও তার দাদা রোহিত শেঠিয়া বাড়ির বাইরে যান এবং গভীর রাতে বাড়ি আসেন।

আরও পড়ুন: ইয়াস বিধ্বস্ত মানুষদের পাশে দাঁড়ালেন নীল ভট্টাচার্য ও তৃণা সাহা, খুললেন নতুন সংস্থা

তাঁদের পারিবারিক সমস্যা এইভাবে প্রকাশ্যে চলে আসায় ভীষণরকমভাবে হতাশ করণ। তিনি বলেন, ‘আমাকে অসম্মান করা হয়েছে, আর এবার ও নিজে বেচারি সেজে মেয়ে হবার ফায়দা লুঠতে চাইছে… এটা অবিশ্বাস্য। আমাকে ইন্ডাস্ট্রির মানুষজন চেনে, তাঁরা জানে এই বিয়েটা টিকিয়ে রাখতে আমি কী না করেছি… আমাকে কত কিছুর মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে। এখন ওর দাবিদাওয়া আমি পূরণ করতে পারছি না বলে আমাকে এমন পরিস্থিতিতে ঠেলে দেবে? যখন বিলাসবহুল জীবন ছিল, তখন তো তুমি সবটাই এনজয় করেছো, আজ আমি সমস্যায় পড়েছি বলে তুমি আলাদা হতে চাইছো… বিচ্ছেদের কথাও আমি মেনে নিয়েছি তাই বলে আমার থেকে সবটা নিয়ে নেবে আর আমি রাস্তায় থাকব সেটা সম্ভবপর নয়। আমি কীভাবে বাঁচব তাহলে?’

করণ বলেন তাঁর বাড়িতে সিসিটিভি ক্যামেরা লাগানো রয়েছে, তবে ঘটনার মুহূর্তের আগেই নিশা ও তাঁর দাদা সমস্ত ক্যামেরা চক্রান্ত করে বন্ধ করে দেন। এবং মাথা ঠোকবার পরের মুহূর্ত মুঠোফোনে ক্যামেরাবন্দি করে পুলিশকে খবর দেন। করণ বলেন, ‘পুলিশের সামনে আমি নিশাকে বলেছিলাম, আমাদের ছেলের নামে শপথ করে বলতে আমি ওকে মেরেছি। ও কিন্তু তেমনটা করেনি’।  করণ আপতত এক বন্ধুর বাড়িতে রয়েছেন। এই ঘটনা নিয়ে নিশা রাওয়ালের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তা সম্ভবপর হয়নি।

২০১২ সালে নিশা রাওয়ালের সঙ্গে সাত পাকে বাঁধা পড়েছিলেন করণ। এর আগে দীর্ঘ ৬ বছর ধরে প্রেম সম্পর্কে আবদ্ধ ছিলেন তাঁরা। একটি ফিল্মের শ্যুটিং সেটেই পরিচয় দুজনের। একসঙ্গে ডান্স রিয়ালিটি শো নাচ বলিয়ে-তেও অংশ নিয়েছিল এই দম্পতি। করণ বিগ বসে-র ঘরে থাকবার সময়তেই নিশা অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন। ২০১৭ সালে জন্ম হয় তাঁদের পুত্রের।

স্টার প্লাসের সুপারহিট শো ‘ইয়ে রিস্তা কেয়া কহেলাতা হ্যায়’-এর নৈতিক হিসাবে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পান করণ, অন্যদিকে রফু চক্কর, হসতে হসতে-র মতো ছবিতে কাজ করেছেন নিশা

আরও পড়ুন: মানসিক অবসাদে ভুগছেন? মন খুলে কথা বলুন, ফোন ধরবেন ঋতাভরী!

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest