মাথা ব্যথায় আর নয় পেইন কিলার, মুক্তি দেবে আপনার রান্নাঘরে থাকা এইসব মসলা

কখনও শরীরে জলের পরিমাণ কম থাকায়, কখনও স্ট্রেস থেকে এই মাথা ব্যথা হয়ে থাকে।

দিনের শুরু থেকেই মাথা ব্যথা করছে। এমন পরিস্থিতিতে কোনও কিছুই ভালো লাগে না। ভালো কথা বললেও মাথা গরম হয়ে যায়। এমন হলে পরিত্রাণ পাওয়ার উপায় কী তাহলে? বিভিন্ন কারণেই মাথা ব্যথায় ভুগতে হয় আমাদের। কখনও শরীরে জলের পরিমাণ কম থাকায়, কখনও স্ট্রেস থেকে এই মাথা ব্যথা হয়ে থাকে। ঘরোয়াভাবে এই যন্ত্রণা থেকে মুক্তির বিষয়ে তুলে ধরা হল-

আদা : মাথা ব্যথা করলে আদা খান। আদা খাওয়ার ফলে মাথা ব্যথা কমার পাশাপাশি শরীরে রক্ত সঞ্চালন ঠিক হয়। এছাড়াও আদার সঙ্গে যদি অল্প একটু লেবুর রস মিশিয়ে খাওয়া হয় তাহলে ভালো উপকার পাওয়া যায়।

দারচিনি : প্রতিটি বাড়িই মসলা হিসেবে দারচিনি রয়েছে। এটি কেবলমাত্র মসলা হিসেবেই ব্যবহার করা হয় না। প্রাচীনকাল থেকে ওষুধ হিসেবেও ব্যবহার হয়ে আসছে রান্নায় ব্যবহার করা প্রাকৃতিক এই উপাদান। প্রথম কয়েকটি দারচিনি নিয়ে ভালোভাবে গুঁড়ো করে পানির সঙ্গে মিশিয়ে পেস্ট করে কপালে লাগান। কিছুক্ষণ পর হালকা গরম জলে দিয়ে ধুয়ে ফেলার পর নিজেই উপকারিতা বুঝতে পারবেন।

আরও পড়ুন: গাড়িতে উঠলেই বমি ভাব? জেনে নিন Motion Sickness দূর করার টোটকা…

লবঙ্গ : সাধারণ দাঁতে ব্যথা হলে লবঙ্গ তেল বা গোটা লবঙ্গই কাজে লাগানো হয়। এতে করে বেশ উপকারও পাওয়া যায়। তবে এটা হয়তো কেউ জানেন না যে, মাথা ব্যথা থেকে মুক্তি দিতে লবঙ্গের বিকল্প কিছু নেই। এ জন্য কয়েকটি লবঙ্গ গুঁড়ো করে একটি রুমালের ভেতর নিয়ে তা নাকের সামনে ধরে ঝাঁজ নিতে থাকুন। নিমিষেই মাথা ব্যথা সেরে যাবে।

লেবু : হারবাল চায়ের ওপর অনেকেরই বিশ্বাস রয়েছে। এই হারবাল চায়ের সঙ্গে অর্ধেক লেবুর রস ভালো করে মিশিয়ে পান করার ফলে মাথা ব্যথা কমে। এছাড়াও একটি লেবুকে কেটে এর রস মাথায় লাগানোর ফলেও মাথা ব্যথা সেরে যায়।

আরও পড়ুন: কমলা লেবু যেসব সমস্যার সমাধান অতি সহজেই করে দেয়, জেনে নিন