Abhishek Banerjee will start his journey in Tripura from the famous Matabari Mandir

নজরে সংগঠন, সোমবারই ত্রিপুরার কঠিন মাঠে ‘খেলা’ শুরু অভিষেকের

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

সর্বভারতীয় রাজনীতিতে শক্তি বাড়াতে তৃণমূল কংগ্রেস যে বাংলার বাইরে প্রথম রাজ্য হিসাবে ত্রিপুরাকেই টার্গেট করেছে, সেকথা আর কোনও রাজনীতি সচেতন মানুষের অজানা থাকার কথা নয়। অন্তত গত কয়েকদিনে একের পর এক তৃণমূল নেতার ত্রিপুরায় আনাগোনা এবং বিপ্লবের রাজ্যে পরিবর্তনের ডাক দিয়ে ঘাসফুল শিবিরের বাড়তে থাকা কর্মসূচির বহর অন্তত সেদিকেই ইঙ্গিত করছে। ইতিমধ্যেই এরাজ্যের শাসকদলের নেতাকর্মীরা ত্রিপুরাতে গিয়ে ঘোষণা করে দিয়েছেন, এবার ত্রিপুরাতেও ‘খেলা হবে’। কিন্তু কোন কৌশলে? কোন রণনীতিতে ত্রিপুরায় মিশন ২০২৩ সফল করতে চাইছে তৃণমূল, তা অনেকটাই স্পষ্ট হয়ে যেতে পারে সোমবার অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ত্রিপুরা সফরের পর।

কথিত আছে, ত্রিপুরার যে কোনও ভালো কাজ শুরু হয় ত্রিপুরেশ্বরীর আশীর্বাদ নিয়ে। তাই ত্রিপুরায় জাঁকিয়ে বসার আগে তৃণমূলও নতুন করে ত্রিপুরায় যাত্রা শুরু করছে মাথাবাড়ি থেকেই। তৃণমূলের ত্রিপুরার নেতারা জানাচ্ছেন, স্থানীয় নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন অভিষেক। নেবেন বুথ রিপোর্ট। সেই অনুযায়ী পথ এগোনোর পরবর্তী নির্দেশ দেবেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক।

আরও পড়ুন : ‘মুরগি বা মটন নয়, বেশি করে গোমাংস খান,’ BJP মন্ত্রীর মন্তব্যে অস্বস্তিতে দল

সূত্রের খবর, আই প্যাক কর্মীদের ত্রিপুরায় হোটেলবন্দি করে রাখার পর তৃণমূলের তরফে আর কোনও ঝুঁকি নিতে রাজি নন অভিষেক। তাই দলীয় নেতাকর্মীদের কোভিড প্রোটোকল মেনে চলারই নির্দেশ দেবেন তিনি। ত্রিপুরার সংগঠনে ঝাঁকুনি দিয়ে নতুন মুখও তুলে আনতে পারেন তিনি। বস্তুত, তৃতীয় বার বাংলায় ক্ষমতায় আসা ও তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক পদে বসার পরই অভিষেক জানিয়েছিলেন, তৃণমূল ভিনরাজ্যে যেখানেই যাবে, ভোট শতাংশ কাটার জন্য যাবে না। বরং সরকার গড়া বা সরকার গঠনে বড় ভূমিকা নিতেই যাবে তাঁরা। কিন্তু ত্রিপুরায় এখন থেকেই ক্ষমতা দখলের স্বাদ পাচ্ছে তৃণমূল। সেই সূত্রেই অভিষেকের সফর বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ।

বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ অবশ্য কটাক্ষ করেছেন, ‘ত্রিপুরায় তৃণমূলের কিছুই নেই। বাংলার বাইরে তৃণমূলের কোনও অস্তিত্বই নেই।’ তবে, ত্রিপুরায় যেভাবে আঁটঘাঁট বেঁধে নামছে এ রাজ্যের শাসক দল, তাতে ‘খেলা’ যে শুরু হয়ে গিয়েছে, তা বলাই বাহুল্য। বিজেপি শাসিত রাজ্যে ক্রমেই কোমর বেধে নামছে তৃণমূল। আর তাতে ঘৃতাহুতি দিয়েছে প্রশান্ত কিশোরের সংস্থা আইপ্যাকের কর্মীদের ত্রিপুরা সরকারের হাউজ অ্যারেস্ট করে রাখার ঘটনা। আইপ্যাকের কর্মীদের মুক্তির দাবিতে প্রতিবাদ করতে গিয়ে ত্রিপুরার বিভিন্ন জায়গায় গ্রেফতার করা হয়েছে তৃণমূলের অনেক নেতা-কর্মীকে। আর এমনই একAbhishek Bannerjjee পরিস্থিতিAbhishek Bannerjjeতে সোমবার ত্রিপুরায় পা রাখছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন : Tokyo Olympics: অলিম্পিক্সের কোয়ার্টার ফাইনাল থেকেই বিদায় নিলেন সতীশ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest