Centre could implement CAA before Lok Sabha polls announcement: Sources

CAA: লোকসভা ভোট ঘোষণার আগেই সিএএ বিজ্ঞপ্তি জারি! খবর স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রে

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

মার্চ মাসেই কার্যকর করা হতে পারে ভারতীয় নাগরিকত্ব (সংশোধনী) আইন বা সিএএ (CAA)। মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রে জানা গিয়েছে, আদর্শ আচরণবিধি চালু হওয়া, অর্থাৎ, লোকসভা নির্বাচনের সূচি ঘোষণার আগে যে কোনও সময়ে এই বিষয়ে বিজ্ঞপ্তি জারি করতে পারে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।

১৯৫৫ সালে দেশে নাগরিকত্ব আইন করা হয়েছিল বেআইনি অনুপ্রবেশ ঠেকাতে। ২০১৯ সালের সংশোধনীতে ওই আইনের ২ নম্বর ধারাটি সংশোধন করে ২(১)বি যুক্ত করা হয়। সেই ধারায় বলা হয়- বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে আসা হিন্দু, শিখ, বৌদ্ধ, জৈন, পারসি ও খ্রিস্টানরা বেআইনি অনুপ্রবেশকারীর দলে পড়বে না। এই সংশোধনীটি আনার সঙ্গে সঙ্গে দেশজুড়ে আগুন জ্বলে। এই আইন ‘অসাংবিধানিক’ ও ‘সংবিধানের পরিপন্থী’ এই দাবি বারবার উঠে আসে আন্দোলনকারীদের মুখে।

২০১৯-এর শেষে CAA-তে রাষ্ট্রপতির সিলমোহর পড়লেও বিধি তৈরি হয়নি। তাই এখনও আইনটি কার্যকর করা যায়নি। গত পাঁচ বছরে বহুবার এই আইন কার্যকর করার দাবি উঠেছে। আবার বিরোধিতাও হয়েছে। কিন্তু কোনও না কোনও অজুহাতে পিছিয়ে গিয়েছে কেন্দ্র। আসলে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন যখন কার্যকর হয়, তখনই দেশজুড়ে কার্যত আগুন জ্বলে। গত কয়েক বছরে তাই আর ঝুঁকি নেওয়া হয়নি।

কিন্তু এই সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন বিজেপির ইস্তেহারে ছিল। তাই সেটা কার্যকর করার দাবি উঠছে দলের ভিতরেই। কিছুদিন আগেই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানিয়েছেন, লোকসভার আগেই সিএএ কার্যকর হয়ে যাবে। তারপরই দিল্লির অন্দরে জল্পনা আগামী মাসের প্রথম সপ্তাহেই নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিজ্ঞপ্তি জারি করা হতে পারে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সরকারি আধিকারিক সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন, শীঘ্রই নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিধিগুলি জারি করা করা হতে পারে। আইনটি কার্যকরের পাশাপাশি যোগ্যদের ভারতীয় নাগরিকত্ব দেওয়ার কাজ শুরু করা হবে। লোকসভা নির্বাচনের আগে তা চালু করার চিন্তাভাবনা সরকার নিয়েছেন বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন ওই আধিকারিক। ওই সরকারি আধিকারিক আরও জানিয়েছিলেন, নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিধি প্রস্তুত। তৈরি অনলাইন পোর্টালও। পুরো প্রক্রিয়াটি অনলাইনেই হবে।

 

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest