The share price bought 43 years ago is now RS 1446 crore, the company refuses to return the money to the old man

৪৩ বছর আগে কেনা শেয়ারের দাম বর্তমানে ১৪৪৮ কোটি টাকা, বৃদ্ধকে টাকা ফেরাতে অস্বীকার সংস্থার

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

৪৩ বছর আগে এক সংস্থার সাড়ে তিন হাজার শেয়ার কিনেছিলেন কেরলের কোচির বাসিন্দা বাবু জর্জ ভালাভি। সেই শেয়ারের বর্তমান মূল্য দাঁড়িয়েছে প্রায় সাড়ে চোদ্দশো কোটি টাকা। বাবুর দাবি, হিসেব অনুযায়ী ওই সংস্থার ২.৮% অংশীদারিত্ব এখন তাঁরই হাতে। একই সঙ্গে বাবুর অভিযোগ, এই বিপুল পরিমাণ টাকা দিতে অস্বীকার করছে ওই সংস্থা।

বাবুর দাবি, ৪৩ বছর আগে তিনি এবং তাঁর চার আত্মীয় মিলে মেবার অয়েল অ্যান্ড জেনারেল মিলস লিমিটেড-এর সাড়ে তিন হাজার শেয়ার কিনেছিলেন। বাবু তাঁর পুরনো কাগজপত্র ঘেঁটে দেখার সময় তাঁর বিনিয়োগের বেশ কিছু কাগজ খুঁজে পান। উদয়পুরের ওই সংস্থা থেকে কেনা শেয়ারের নথি নিয়ে খোঁজ নেওয়া শুরু করেন। তখনই জানতে পারেন তিনি যে শেয়ার কিনেছিলেন, তার বর্তমান মূল্য দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৪৪৮ কোটি টাকায়।

বাবু এটাও জানতে পারেন তিনি যে সময় শেয়ার কিনেছিলেন সেই সময় উদয়পুরের ওই সংস্থা শেয়ার বাজারের নথিভুক্ত সংস্থা ছিল না। কিন্তু বর্তমানে সংস্থার নাম বদলে পিআই ইন্ডাস্ট্রিজ হয়েছে। একই সঙ্গে সেটা শেয়ার বাজারের নথিভুক্ত সংস্থার তালিকাতেও ঢুকেছে।

২০১৫ সালে বাবুর ছেলে শেয়ারের কাগজপত্র দেখেন । তিনি সেই নথি নিয়ে শেয়ারের এক এজেন্টের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। ওই এজেন্ট সংস্থার সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করার পরামর্শ দেন। বাবুরা তখন ওই সংস্থায় গেলে তাঁদের বলা হয় ওই শেয়ার ১৯৮৯ সালে অন্য ব্যক্তিদের হস্তান্তরিত করে দেওয়া হয়েছে। এই কথা শুনে স্তম্ভিত হয়ে যান। আসল নথি তাঁর কাছে অথচ সেই শেয়ার হস্তান্তর হয়ে গেল কী ভাবে!বাবুর অভিযোগ, অবৈধ ভাবে তাঁর শেয়ার অন্যদের বেচে দিয়েছে পিআই ইন্ডাস্ট্রিজ। বাবু বিষয়টি নিয়ে সেবি-র দ্বারস্থ হয়েছেন।

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest