ইতিহাসে প্রথম! মার্কিন ভাইস-প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিস

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

মার্কিন নির্বাচনের আগে মাস্টারস্ট্রোক দিলেন ডেমোক্র্যাটিক পার্টির প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বিডেন। নির্বাচনে নিজের সঙ্গী হিসেবে তিনি বেছে নিলেন অ-শ্বেতাঙ্গ এবং প্রথম ভারতীয় বংশোদ্ভূত মহিলা কমলা হ্যারিসকে (Kamala Harris)। এই প্রথম আমেরিকার ভাইস প্রেসিডেন্ট পদের জন্য দক্ষিণ এশিয়ার বংশোদ্ভূত অ-শ্বেতাঙ্গ কোনও ব্যক্তি লড়াই করছেন।

মঙ্গলবার একটি টুইটবার্তায় ডেমোক্র্যাটিক দলের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী বিডেন বলেন, ‘আমি গর্বের সঙ্গে ঘোষণা করছি, আমার সহযোদ্ধা হিসেবে কমলা হ্যারিসকে বেছে নিয়েছি। ছোটো ছেলের জন্য নির্ভীক যোদ্ধা এবং দেশের অন্যতম সেরা জনপ্রতিনিধি।’

সেই ঘোষণার পর প্রকাশ্যে প্রথম প্রতিক্রিয়ায় কমলা টুইটারে লেখেন, ‘আমেরিকার মানুষদের একত্রিত করতে পারবেন জো বিডেন। কারণ তিনি সারাজীবন আমাদের জন্য লড়াই করে গিয়েছেন। প্রেসিডেন্ট হিসেবে উনি এমন এক আমেরিকা গড়ে তুলবেন, যা আমাদের আদর্শ মেনে চলবে। দলের ভাইস-প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হিসেবে নির্বাচিত হয়ে আমি সম্মানিত এবং তাঁকে (বিডেন) কমান্ডার-ইন-চিফ বানানোর জন্য যা করার প্রয়োজন, তা করব।’

আরও পড়ুন: করোনা যুদ্ধে বাজিমাত রাশিয়ার?টিকাকরণ পুতিনের মেয়েকে!

একটা সময় কমলা মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হওয়ার লড়াইয়েও ছিলেন। কিন্তু ডেমোক্র্যাটদের দলের অন্দরের লড়াইয়ে জো বিডেনের (Joe Biden) কাছে হেরে যান তিনি। দলের অভ্যন্তরীণ নির্বাচনের সময় একাধিক বিতর্কে বিডেনকে তুলোধোনাও করেছেন কমলা। কিন্তু সেই বিডেনই এবার তাঁকে নিজের সঙ্গী হিসেবে বেছে নিলেন। আসলে আমেরিকার ভারতীয়দের মধ্যে ট্রাম্প অত্যন্ত জনপ্রিয়। আর আমেরিকায় বহু ভারতীয় বংশোদ্ভূতের বাস। ভারতীয় বংশোদ্ভূতদের মধ্যে ট্রাম্পের (Donald Trump) সেই জনপ্রিয়তাকে টক্কর দেওয়ার জন্যই কমলাকে বেছে নিয়েছেন বিডেন। তাছাড়া আমেরিকায় সম্প্রতি শ্বেতাঙ্গ-কৃষ্ণাঙ্গের বিবাদ নিয়েও প্রচুর জলঘোলা হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে একজন অ-শ্বেতাঙ্গকে ভাইস প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী করে কৃষ্ণাঙ্গদেরও মন পাওয়ার চেষ্টা করলেন ডেমোক্র্যাট নেতা। বিডেনের এই মাস্টারস্ট্রোক ট্রাম্পকে চাপে ফেলবে সন্দেহ নেই।

বিডেনের সেই সিদ্ধান্তে আমেরিকায় বসবাস করা ভারতীয়রা উচ্ছ্বসিত হলেও খোঁচা দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। দ্বিতীয় দফায় প্রেসিডেন্টের কুর্সিতে বসার লক্ষ্যে প্রতিদ্বন্দ্বীদের মধ্যে ঝামেলা পাকাতে ট্রাম্প মন্তব্য করেন, বিডেনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল না হওয়া সত্ত্বেও কমলাকে নিজের ডেপুটি হিসেবে বেছে নেওয়ার সিদ্ধান্তে তিনি ‘অবাক’ হয়েছেন। একইসঙ্গে ট্রাম্প বলেন, ‘উনি (কমলা) কীভাবে কাজ করেন, তা আমরা দেখব। আপনারা জানেন, উনি প্রাথমিক ক্ষেত্রগুলিতেও খুব, খুব বাজে কাজ করেছেন।’

আরও পড়ুন: হঠাৎ হোয়াইট হাউসের বাইরে গুলি, সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হল ট্রাম্পকে

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest