করোনা মৃত্যুমিছিল এবার ইরানে, আক্রান্ত পার্লামেন্টের সদস্যরা, সাময়িক মুক্তি দেওয়া হল ৫৪ হাজার বন্দিকে

ওয়েব ডেস্ক: চিনের পরে ইরানে মহামারী নোভেল করোনাভাইরাস। তেহরানের স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানিয়েছে, ভাইরাসের সংক্রমণে গত দু’সপ্তাহে মৃত্যু হয়েছে ৭৭ জনের। সংক্রামিত আড়াই হাজারেরও বেশি। সংক্রামিতদের মধ্যে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন কয়েকজন। পার্লামেন্টের ২৩ জন সদস্য ভাইরাস আক্রান্ত। করোনা হানা দিয়েছে ইরানের জেলেও। জরুরি অবস্থা জারি করে অন্তত ৫৪ হাজার বন্দিকে সাময়িকভাবে জেল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: করোনা আতঙ্ক : সংক্রমণের আশঙ্কায় হোলি অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন না প্রধানমন্ত্রী

সরকারের মুখপাত্র আলি রাবেই বলেছেন, করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পরার আতঙ্কে শনিবার যে ছুটি ঘোষণা করা হয়েছিল তা চলতি সপ্তাহের শেষ অবধি চলবে বলেই জানা গিয়েছে”।সোমবার সন্ধ্যায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার একটি চার সদস্যের দল তেহরান পৌঁছেছে।সপ্তাহব্যাপী এই সফরে দেশের স্বাস্থ্য ক্ষেত্রের প্রতিনিধিদের সঙ্গে দেখা করবেন, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে করে গাইডলাইন দেবেন। হাসপাতালের পরিকাঠামো দেখে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা আছে কি না তাও দেখবেন বলেই এদিন জানা গিয়েছে।

iran2

গত সপ্তাহ থেকেই আচমকা করোনা মহামারীর চেহারা নিতে থাকে ইরানে। ভাইরাসে আক্রান্ত হতে শুরু করেন শয়ে শয়ে মানুষ। ইরানের উপস্বাস্থ্যমন্ত্রী তো ছিলেনই, সম্প্রতি ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন সে দেশের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাসুমে এবতেকর। পার্লামেন্টের সদস্যদের মধ্যেও ছড়িয়েছে সংক্রমণ। ইরানি পার্লামেন্টের জাতীয় নিরাপত্তা ও বিদেশ বিষয়ক কমিটির প্রধান মজতুবা জলনৌরের আক্রান্ত হওয়ার খবর মিলেছিল আগেই। তেহরানের স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানাচ্ছে, ইরানি পার্লামান্টের অন্তত ২৩ জনের শরীরে মিলেছে করোনাভাইরাসের খোঁজ।

আরও পড়ুন: করোনা ভাইরাস কী এবং কীভাবে ছড়ায়? জেনে নিন প্রতিরোধের বিস্তারিত উপায়

ইরানের জেলগুলিতেও হানা দিয়েছে করোনাভাইরাস, এমন খবর মিলেছে সে দেশের কিছু সরকারি সূত্র থেকে। জানা গিয়েছে, জেলের ভিতরে সংক্রমণ ছড়াচ্ছে হুহু করে। ইতিমধ্যেই কয়েকজন বন্দিকে করোনা সংক্রামিত সন্দেহ করা হচ্ছে। জরুরি অবস্থা জারি করে প্রায় ৫৪ হাজার বন্দিকে সাময়িকভাবে মুক্তি দেওয়া হয়েছে। তবে পাঁচ বছরের বেশি কারাবাসে দণ্ডিত যারা, তাদের এখনই ছাড়া হবে না বলে জানা গিয়েছে।