‘আপনাকে ছাড়া বাঁচব না দিদি’, মমতার কাছে ক্ষমা চেয়ে তৃণমূলে ফেরার ইচ্ছাপ্রকাশ সোনালি গুহর

সম্মানীয়া দিদি, আমার প্রণাম নেবেন। আমি সোনালি গুহ, অত্যন্ত ভগ্ন হৃদয়ে বলছি যে আমি আবেগপূর্ণ হয়ে চরম অভিমানে ভুল সিদ্ধান্ত নিয়ে অন্য দলে গিয়েছিলাম।
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে ফিরতে চান সোনালি গুহ। রাজ্যের প্রাক্তন বিধায়ক এবং রাজ্য বিধানসভার প্রাক্তন ডেপুটি স্পিকার সোনালি বিধানসভা ভোটে টিকিট না পেয়ে ভেঙে পড়েছিলেন। রাতারাতিই মুকুল রায়ের সঙ্গে যোগাযোগ করে তিনি বিজেপি-তে যোগ দেন। তবে বিজেপি-ও তাঁকে বিধানসভা ভোটে টিকিট দেয়নি। বিধানসভা ভোটে ভরাডুবি হয়েছে বিজেপি-র। তার পরেই তৃণমূল থেকে বিজেপি-তে যাওয়া নেতা-কর্মীদের একে একে ‘মোহভঙ্গ’ হতে শুরু করেছে। ইতিমধ্যেই বসিরহাটের প্রাক্তন বিধায়ক দীপেন্দু বিশ্বাস বিজেপি ছেড়েছেন। অতঃপর সোনালি।

আরও পড়ুন : Black Fungus Death in Kolkata: রাজ্যে ব্ল্যাক ফাঙ্গাসে প্রথম মৃত্যু!

টুইটারে দলত্যাগী নেত্রী লেখেন, “সম্মানীয়া দিদি, আমার প্রণাম নেবেন। আমি সোনালি গুহ, অত্যন্ত ভগ্ন হৃদয়ে বলছি যে আমি আবেগপূর্ণ হয়ে চরম অভিমানে ভুল সিদ্ধান্ত নিয়ে অন্য দলে গিয়েছিলাম। যেটা ছিল আমার চরম ভুল সিদ্ধান্ত। কিন্তু সেখানে নিজেকে মানিয়ে নিতে পারিনি। মাছ যেমন জল ছাড়া বাঁচতে পারে না, তেমনই আমি আপনাকে ছাড়া বাঁচতে পারব না। দিদি আমি আপনার কাছে ক্ষমাপ্রার্থী, দয়া করে আমাকে ক্ষমা করে দিন। আপনি ক্ষমা না করলে আমি বাঁচব না। আপনার আঁচলের তলে আমাকে টেনে নিয়ে, বাকি জীবনটা আপনার স্নেহতলে থাকার সুযোগ করে দিন। ধন্যবাদান্তে, আপনার স্নেহের সোনালি গুহ।”

গত ৫ মার্চ তৃণমূল প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করেনছিলেন মমতা। দেখা যায়, সেই তালিকা থেকে বাদ পড়েছেন সাতগাছিয়ার চারবারের বিধায়ক সোনালী। দিদির দীর্ঘদিনের সঙ্গীকে বাদ দিয়ে সাতগাছিয়ায় তৃণমূল প্রার্থী হন বিষ্ণুপুর-২ পঞ্চায়েত সমিতির প্রাক্তন সভাপতি মোহন নস্কর। তারপরেই সংবাদমাধ্যমে চোখের জল ফেলে তৃণমূল ছাড়ার কথা ঘোষণা করেন। সঙ্গে বিজেপি-র হেস্টিংসেরঅফিসে গিয়ে পদ্মশিবিরে যোগ দেন।

এই প্রসঙ্গে বঙ্গ বিজেপির মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্য বলেন, ‘কেউ যদি ফিরে গিয়ে শান্তি পায় তাহলে আমাদের কিছু বলার নেই।’ অন্য দিকে, সোনালিকে ফেরানোর ব্যাপারে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়্ শেষ কথা বলবেন বলে উল্লেখ করেন তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়।

আরও পড়ুন : স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠাই একমাত্র সমাধান : বাইডেন

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest