আপাতত ১৫ জুন পর্যন্ত বিধিনিষেধ জারি থাকবে রাজ্যে। তবে, কার্যত লকডাউনে কয়েকটা ছাড়ের কথা ইতিমধ্যেই ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর সেই ঘোষণার পর আজ  মঙ্গলবার থেকে খুলছে মদের দোকান। সময়সীমা, দুপুর ১২ টা থেকে ৩টে।

এক নির্দেশিকায় আবগারি দপ্তর জানিয়েছে, খুচরো দোকানের মধ্যেই ধরা হবে ফরেন লিকার অফশপগুলিকে। তবে বার ও রেস্তরাঁ আগের মতোই বন্ধ থাকবে। সেক্ষেত্রে কোনও ছাড় দেওয়া হয়নি। বলে রাখা ভাল, ১৪ মে থেকে করোনা রুখতে কড়া বিধিনিষেধ জারি করে নবান্ন। বন্ধ করে দেওয়া হয় মদের দোকান। পাশাপাশি, অন্য দোকান-বাজার খোলার ক্ষেত্রেও বেশ কিছু নিয়ম জারি করা হয়।

আরও পড়ুন : বিধিনিষেধে ‘লঘু’ মমতার, খুচরো দোকান খোলায় ছাড়- চলতে পারে IT অফিসও

উল্লেখ্য, করোনা মোকাবিলায় রাজ্যে জারি রয়েছে একাধিক বিধিনিষেধ। সেই বিধিনিষেধেই এবার কিছুটা ছাড় দিল রাজ্য সরকার। সোমবার নবান্নে সাংবাদিক বৈঠক করে সেই সিদ্ধান্তের কথা জানান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। বর্তমানে সকাল ৭টা থেকে ১০টা পর্যন্ত খোলা থাকছে দোকান, বাজার। বেলা ১২টা থেকে ৩টে পর্যন্ত শাড়ি এবং গয়নার দোকান খোলা থাকার কথা।

মিষ্টির দোকান খোলার ক্ষেত্রেও বেঁধে দেওয়া হয়েছে নির্দিষ্ট সময়সীমা। তবে পাটশিল্প এবং নির্মাণ ক্ষেত্রেও কিছু ছাড় দেওয়া হয়েছিল। খুচরো দোকানও খোলা রাখতে দেওয়া হোক, এই আবেদন জানিয়েছিলেন ব্যবসায়ীরা। সেই অনুরোধ অনুযায়ী বিধিনিষেধের ক্ষেত্রে কিছু ছাড় দেওয়া হল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, খুচরো দোকান এবার বেলা ১২টা-৩টে পর্যন্ত খোলা থাকবে। ১০ শতাংশ কর্মী নিয়ে তথ্যপ্রযুক্তি কেন্দ্রে শুরু করা যেতে পারে কাজ। টিকাকরণ হয়ে গিয়েছে এমন শ্রমিককে নিয়ে নির্মাণ কাজ করা যেতে পারে। তবে সবক্ষেত্রেই দূরত্ববিধি মানা বাধ্যতামূলক। রাজ্যে জারি হওয়া বিধিনিষেধের জন্য বন্ধ রয়েছে ট্রেন, বাস এবং মেট্রো পরিষেবা। আগামী ১৬ জুন পর্যন্ত রাজ্যে জারি থাকবে বিধিনিষেধ।

আরও পড়ুন : দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর মিলল ছাড়পত্র, বিরাটের সঙ্গে ইংল্যান্ড যাচ্ছেন অনুষ্কাও

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *