দিদির কড়া শাসনে সংক্ষিপ্ত হল সময়। তবে ফেসবুক লাইভ থেকে দূরে সরতে পারলেন না কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্র। সোশ্যাল মিডিয়ায় তার লাইভ জনমানসে বহুল প্রচারিত। কিন্তু মদনের এই লাইভে রাশ টানতে বলেছে দল। শনিবার দলের সাংগঠনিক বৈঠকে মদন মিত্রকে ডেকে সতর্ক করে দিয়েছে দল। তারপরেও শনিবার ফেসবুক লাইভ করেছিলেন কামারহাটির তৃণমূল বিধায়ক৷ সেখানে তিনি উল্লেখ করেছিলেন, “কালকের পর থেকে সেই মদন মিত্রকে আর পাবেন না, যে মদন মিত্রকে কথায় কথায় পেতেন।”

আরও পড়ুন :Bhatpara: ফের ভাটপাড়ায় ব্যাপক বোমাবাজি, উড়ে গেল মাথার খুলি, শাসক–বিরোধী তরজা

ফেসবুক লাইভে মদন মিত্র আর আসবেন না শুনে হতাশ হয়ে পড়েছিলেন নেটাগরিকরা। কিন্তু তাঁদের জন্যেই  রবিবাসরীয় দুপুরে ফের ফেসবুকে লাইভ করলেন মদন মিত্র। সংক্ষিপ্ত এই লাইভ চলল ৫ মিনিট ৩০ সেকেন্ড ধরে। যেখানে প্রথম তিন ঘন্টায় লাইক হল ৫ হাজারের বেশি। কমেন্ট হল ১১০০ বেশি। ৩৩৯ জন শেয়ার করলেন। আর দেখে ফেললেন ৮২ হাজার ফেসবুক নাগরিক।

দুপুরে হালকা নীল রঙের ডেনিম জিন্স আর গাঢ নীল রঙের টি-শার্ট পড়ে হাতে ফুলের মালা নিয়ে এলেন ফেসবুক লাইভে৷ সেখানে পুজো পাঠের পাশাপাশি চলল ঘোষণা। মদন মিত্রের ঘোষণা আগামী ৩০ জুন কামারহাটিতে মিলন উৎসব পালন করব। বিবেকানন্দ মাঠে হবে এই উৎসব। কামারহাটির মানুষ জয় উপভোগ করবেন। তবে উৎসব পালন করব দুপুরে৷ রাতে হবে না এই উৎসব। ফেসবুক লাইভ থেকেই ফের ঘোষণা করলেন মদন মিত্র।

এর পাশাপাশি এদিন তিনি বলেন, ” কামারহাটির ভোটে আমরা যে জিতলাম তা নিয়ে ৩০ জুন বিজয়-উৎসব পালন করব। অন্তত হাজার কুড়ি লোক নিয়ে করব। গান বাজনা, হৈ-হুল্লোড় করব।” এর পরেই তিনি ফেসবুক লাইভে শুরু করলেন পুজো পাঠ। তখন তিনি বলেন, ” শিব হল গুরুদেব। তাই গুরুর গলায় মালা দিলাম। শিব আমাদের রক্ষা করবে। শত্রু মিত্র যারা লাইভ দেখছেন আমার তাদের ভালো ও সুস্থতা কামনা করছি।” এরপর একে একে ভবতারিণী, সারদা, রামকৃষ্ণ, গণেশ, জগন্নাথ পুজো সারলেন মদন মিত্র। এরপর তিনি বলেন, ” ঈশ্বরের কাছে আমার একটাই প্রার্থনা, যদি জ্ঞানত কোনও অন্যায় করে থাকি তার জন্যে ক্ষমা চাইছি৷ জ্ঞানে, অজ্ঞানে ভুল করে থাকলে ক্ষমা চাইছি৷ ভবিষ্যতেও যাতে অন্যায়-ভুল না করি তার জন্যে প্রার্থনা করছি।”

এর পর তিনি ফের মনে করিয়ে দেন, “৩০ জুন আমরা কামারহাটিতে মিলন উৎসব করব। পৃথিবীর সব মানুষকে শুভেচ্ছা জানাতে চাই। গতকাল দল যা সিদ্ধান্ত নিয়েছে তা অসাধারণ সিদ্ধান্ত। অভিষেক-সায়নী-রাজ-ঋতব্রতকে অসংখ্য শুভেচ্ছা। জয় বাংলা, জয় তৃণমূল, জয় মমতা বন্দোপাধ্যায়।  ৩০ জুন দুপুরে করব এই উৎসব।”মদন মিত্রের এই লাইভ নিয়ে অবশ্য দল কোনও মন্তব্য করেনি। তবে তার প্রতিটি পদক্ষেপ যে মেপে দেখছে দল সেটা বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন : WB Board Exam Update: মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা নিয়ে মতামত চাইল রাজ্য সরকার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *