‘মোদীকে সরানোই আমাদের লক্ষ্য’, কৃষক নেতাদের সঙ্গে বৈঠক শেষে হুঁশিয়ারি Mamata-র

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

দিল্লির কৃষক আন্দোলেন নেতা রাকেশ টিকাইট বুধবার দেখা করেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে। সূত্রের খবর কৃষি সংক্রান্ত বিষয় নিয়েই তাঁরা বৈঠক করেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দিল্লির সীমানায় চলা কৃষক আন্দোলনে সম্পূর্ণ রূপে সমর্থন জানিছেন। একই সঙ্গে আন্দোলনকারী কৃষকদের পাশে থাকার প্রতিশ্রুতিও দিয়েছেন।

২০২৪-এর লোকসভা নির্বাচনে প্রধানমমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে গদিচ্যুত করাই তাঁর প্রধান লক্ষ্য। বুধবার নবান্নে কৃষক নেতা রাকেশ টিকায়েতের সঙ্গে বৈঠক শেষে, তা আরও একবার স্পষ্ট করে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন : যোগী সরকারের প্রাক্তন মুখ্যসচিবকে নির্বাচন কমিশনার হিসেবে নিয়োগ কেন্দ্রের

সিঙ্গুর, নন্দীগ্রাম আন্দোলনের প্রসঙ্গ টেনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “আমরা কৃষকদের আন্দোলনকে সমর্থন করি। কৃষকদের পাশে আছি। কৃষক আন্দোলন আরও জোরদার হওয়া প্রয়োজন। প্রয়োজনে অন্যরাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে আমি কথা বলব।” তাঁর অভিযোগ, গায়ের জোরে কৃষি আইন পাস করেছে কেন্দ্র। ৭ মাস ধরে আন্দোলন চললেও, কেন সরকার কৃষদের সঙ্গে কথা বলছে না? সেই প্রশ্নও করেন তিনি। অন্য রাজ্যের প্রতি মুখ্যমন্ত্রীর বার্তা, “যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোয় রাজ্যগুলোকেও এক মঞ্চে আসতে হবে। কোনও একটা রাজ্যের সঙ্গে অন্যায় হলে। বাকিদের ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে।”

বৈঠকের পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় সরকারের পাশ করা কৃষি আইনের বিরুদ্ধে তাঁরা রেজুলেশন পাশ করিয়েছেন। আন্দোলনকারী কৃষকদের দাবি পুরন না হওয়া পর্যন্ত তৃণমূল তাদের পাশে থাকবে বলেও আশ্বাস দিয়েছেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায় বলেন, কেন্দ্রীয় গত সাত মাস ধরে আন্দোলনকারী কৃষকদের সঙ্গে কথা বলতে রাজি হচ্ছে না বলেও অভিযোগ করেন। একই সঙ্গে তিনি বলেন শিল্গগুলি ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। ওষুধের ওপর জিএসটি আরোপ করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেছেন তিনি। তৃণমূল সুপ্রিমো নতুন তিনটি কৃষি আইন প্রত্যাহারেও আবেদন জানিয়েছিলেন।

ভারতীয় কিষণ ইউনিয়নের নেতা রাকেশ টিকাইত বলেছেন, কৃষি, স্বাস্থ্য, শিক্ষা আর স্থানীয় কৃষকদের বিষয় নিয়ে আলোচনা করার জন্যই তারা মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ হয়েছিলেন। বৈঠক শেষে সাংবাদিক সম্মেলনে রাকেশ টিকাইত বলেন, পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। একই সঙ্গে তিনি বলেছেন এই রাজ্যের মডেল রাজ্য হিসেবে কাজ করা উচিৎ। কৃষকদের আরও বেশি সুযোগ সুবিধে দেওয়া উচিৎ। রাকেশ টিকাইত জানিয়েছেন কৃষক বিক্ষোভ অব্যাহত থাকবে। আর মুখ্যমন্ত্রী যাতে জাতীয় ইস্যুগুলিতে আরও বেশি মনোনীবেশ করেন তারও অনুরোধ জানান হয়েছে।

আরও পড়ুন : Nusrat-Nikhil Relationship: ‘গয়না আটকে রেখেছে,আমার টাকা ব্যবহার করছে’, অভিযোগ নুসরতের, জবাব দিলেন নিখিল

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest