Minister Subrata had two stents in his heart, Chief Minister called to find out

মন্ত্রী সুব্রতর হৃদপিণ্ডে বসল দুটি স্টেন্ট, ফোন করে খোঁজ নিলেন মুখ্যমন্ত্রী

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

বেশ কয়েকদিন ধরেই এসএসকেএম হাসপাতালে ভরতি রাজ্য মন্ত্রিসভার প্রবীনতম সদস্য সু্‌ব্রত মুখোপাধ্যায় (Subrata Mukherjee)। সোমবার হল তাঁর অ্যাঞ্জিওপ্লাস্টি। এদিন সকাল এগারোটা নাগাদ তাঁর অস্ত্রোপোচার করা হয়। মন্ত্রীর হৃদপিণ্ডে বসানো হয়েছে দুটি স্টেন্ট।

অস্ত্রোপচারের পরই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) ফোন করে খবর নেন পঞ্চায়েতমন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের। জানতে চান অস্ত্রোপোচার কেমন হয়েছে, তিনি এখন কেমন আছেন। হাসপাতাল সূত্রে খবর, ২৪ অক্টোবর সুব্রত মুখোপাধ্যায় হাসপাতালে ভরতি হওয়ার পর থেকেই নিয়মতি ফোনে তাঁর খোঁজ নিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। সোমবারও তার অন্যথা হয়নি।
হাসপাতাল সূত্রে খবর, ভর্তি হওয়ার পর তাঁকে প্রথমে উডবার্নের আইসিসিউ–তে রাখা হযেছিল। পরে তাঁকে স্থানান্তরিত করা হয় কার্ডিওলজি বিভাগের আইসিইউ–তে। এমনকী বাইপ্যাপ সাপোর্টে রাখা হয় রাজ্যের মন্ত্রীকে। দেওয়া হয় অক্সিজেনও। পরে বুকেও সংক্রমণ ধরা পড়ে। হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার অধ্যাপক সরোজ মণ্ডলের নেতৃত্বে সাত সদস্যের মেডিক্যাল বোর্ড গঠন করা হয় মন্ত্রীর চিকিৎসার জন্য।
এসএসকেএম সূত্রে খবর, গত শনিবার চিকিৎসকরা সিদ্ধান্ত নেন দ্রুত সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের অ্যাঞ্জিওগ্রাম করার। সেই মতো তাঁর অ্যাঞ্জিওগ্রাম করা হয়। রির্পোটে দেখা যায় দুটি ধমনীর প্রায় সবটাই ব্লকেজ। সঙ্গে সঙ্গে অ্যাঞ্জিওপ্লাস্টির সিদ্ধান্ত নেন মেডিক্যাল বোর্ডের বিশেষজ্ঞরা।

উল্লেখ্য, মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের বয়স এখন ৭৫। মে মাসে নারদ–কাণ্ডে গ্রেফতার হওয়ার পর মন্ত্রীকে ভর্তি করা হয়েছিল হাসপাতালে। তখনও হৃদযন্ত্রের সমস্যা দেখা দিয়েছিল। এবার প্রায় একঘণ্টা অস্ত্রোপচারের পর মন্ত্রীকে পর্যবেক্ষণের জন্য কার্ডিওলজির আইসিইউ–তে রাখা হয়। হাসপাতাল থেকে পাওয়া খবর, সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের অবস্থা স্থিতিশীল।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest