Road Accident: Aliah University Student died in hit and run case in new town area

Road Accident: বছরের প্রথম দিনেই বেপরোয়া গতির বলি আলিয়ার পড়ুয়া

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

নিউটাউনে বেপরোয়া গতিতে ছুটে আসা গাড়ির ধাক্কায় মৃত্যু এক ছাত্রের। মৃতের নাম শাকিল আহমেদ। স্থানীয় সূত্রে খবর, আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস থেকে বেরনোর সময় তাঁকে ধাক্কা মারে একটি গাড়ি। ছিটকে রাস্তার পাশে পড়ে যান ওই ছাত্র। সার্ভিস রোডে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে ছিলেন শাকিল। তাঁকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু কর্তব্যরত চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

স্থানীয় সূত্রে খবর, এদিন বিকালে তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের কাছেই সার্ভিস রোড ধরে হাঁটছিলেন। তিনি বিকাল সাড়ে চারটে নাগাদ ইউনিভার্সিটি থেকে বেরিয়ে মেসে ফেরার জন্য ইকোস্পেসের দিকে যাচ্ছিলেন। সেই কমদপুকুর মোড়ের দিক থেকে একটি গাড়ি বেপরোয়াভাবে চলে আসে। এরপরই তাকে ধাক্কা মেরে চম্পট দেয় গাড়িটি। এদিকে সার্ভিস রোডের পাশেই ছিটকে পড়েন তিনি। রক্তে ভেসে যায় এলাকা। মাথা ফেটে চৌচির হয়ে যায়।

আরও পড়ুন: Swami Vivekananda: বিবেকানন্দই জন্মেছেন মোদী রূপে, নয়া দাবি নিয়ে আসরে রাহুল সিনহা

তার বাড়ি মুর্শিদাবাদের ইসলামপুরে। গোটা ঘটনায় সহপাঠীদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে আসে। এদিকে ঘাতক গাড়িটিকে আটক করা ও চালককে গ্রেফতারের দাবিতে দফায় দফায় অবরোধ শুরু হয়। এই ঘটনায় ‘Hit and Run’ মামলা রুজু করে তদন্তে নেমেছে টেকসো সিটি থানার পুলিশ। ঘাতক গাড়ির খোঁজে এলাকার CCTV ফুটেজ খতিয়ে দেখছেন তদন্তকারীরা।

বর্ষবরণের রাত থেকে শুরু করে রবিবার বিকেল পর্যন্ত কলকাতার একাধিক জায়গায় দুর্ঘটনা ঘটে। শনিবার রাতে বেপরোয়া গাড়ির ধাক্কায় আহত হন এক ট্র্যাফিক কনস্টেবল। পুলিশ সূত্রে খবর, ওই দিন চায়না টাউনের কাছে নাকা চেকিংয়ের ডিউটিতে ছিলেন তিনি। নাকা চেকিংয়ের জন্যেই একটি গাড়িকে আটকাতে যান তিনি। কিন্তু গাড়ির চালক সেই বাধা মানেননি। ট্র্যাফিক কনস্টেবলকে ধাক্কা মেরেই এগিয়ে যায় গাড়িতে। এতেই গুরুতর জখম হন ওই পুলিশ কর্মী। বর্তমানে হাসাপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে, বর্ষবরণের রাতে কলকাতার বিভিন্ন জায়গায় ট্রাফিক আইন ভাঙার অভিযোগে ৫৪০ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এদের মধ্যে মদ্যপ অবস্থায় গাড়ি চালানোর অভিযোগে গ্রেফতার করা হয় ১৭৯ জনকে। এছাড়াও বেপরোয়া গতির জন্য জরিমানা দেন ১৮৭ জন।

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest