সংস্রব ছিন্ন! পাক হাইকমিশনের অর্ধেক কর্মীকে ফেরত পাঠাচ্ছে নয়াদিল্লি

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

ওয়েব ডেস্ক: নয়াদিল্লির পাক হাইকমিশনের ৫০ শতাংশ কর্মীকে ফেরত পাঠানোর জন্য ইসলামাবাদে বার্তা পাঠাল ভারত। মঙ্গলবার বিদেশমন্ত্রকের তরফে জারি করা এক বিবৃতিতে এ কথা জানানো হয়েছে। পাক দূতাবাসের কর্মীদের একাংশের বিরুদ্ধে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগের জেরেই মোদী সরকার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। 

একইভাবে ইসলামাবাদের (Islamabad) ভারতীয় হাইকমিশন থেকেও কমানো হবে কর্মী। পাক হাইকমিশনারকে তলব করে এই সিদ্ধান্ত জানিয়েছেন বিদেশমন্ত্রী এস জয়শংকরের মন্ত্রক (Ministry of External Affairs)। জানা গিয়েছে, আগামি সাত দিনের মধ্যে এই সিদ্ধান্ত কার্যকর করা হবে। 

আরও পড়ুন : ফের অসুস্থ সাধ্বী প্রজ্ঞা,শ্যামাপ্রসাদের মৃত্যুবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে সংজ্ঞা হারালেন আচমকা

পাকিস্তানি কূটনীতিবিদরা ভারতের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে এবং সন্ত্রাসবাদী সংগঠনের সঙ্গে সম্পর্ক রেখেছে। এই নালিশ পাকিস্তানের হাইকমিশনারের সামনে ঠোকা হয়েছে। উদ্বেগও প্রকাশ করেছে বিদেশ মন্ত্রক। 

গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে নয়াদিল্লির পাক হাইকমিশনের দুই কর্মী, আবিদ হুসেন এবং মহম্মদ তাহিরকে আটক করার পরে তাঁদের ‘অবাঞ্ছিত’ ঘোষণা করে বহিষ্কার করা হয়েছিল।এর পরেই ইসলামাবাদের ভারতীয় হাইকমিশনের দুই কর্মীকে বেপরোয়া গাড়ি চালিয়ে দুর্ঘটনা ঘটানোর মিথ্যা অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়।

অভিযোগ, পাক গোয়েন্দারা রাস্তা থেকে জোর করে তুলে নিয়ে গিয়ে ওই দু’জনের উপর অত্যাচার চালায়। এর পর সুলভাদেশ পল এবং দওয়ামু ব্রাহমুর নামে ওই দুই কর্মীকে ভারতে ফিরিয়ে আনে বিদেশমন্ত্রক।

এদিকে চিনের সঙ্গে ভারতে গণ্ডগোলের সুযোগে ফায়দা তুলতে চাইছে পাকিস্তান। কাশ্মীরে নাশকতা চালানোর জন্য লস্কর এবং জঈশ জঙ্গিদেক অনুপ্রবেশ করানোর ছক কষছে ইসলামাবাদ। এমনই অভিযোগ করেছেন কাশ্মীরের পুলিস প্রধান দিলবাগ সিং।

আরও পড়ুন : অবশেষে জামিন পেলেন অন্তঃসত্ত্বা সফুরা, কপিল মিশ্র, অনুরাগদের নিয়ে প্রশ্ন তোলে সাধ্য কার!

Gmail 4
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest