কপাল জোরে রক্ষা পেল বাণিজ্যনগরী, শক্তি হারিয়ে দূর্বল হল ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’

মুম্বই: ক্রমশ শক্তিক্ষয় করছে ঘূর্ণিঝড় নিসর্গ। আবহাওয়া দপ্তরের পূর্বাভাস অনুযায়ী আগামী ১ ঘন্টার মধ্যেই থেমে যাবে নিসর্গের তান্ডব। এবারের মতো রক্ষা পেল বাণিজ্যনগরী। ইতিমধ্যেই মুম্বইয়ের আকাশ পরিষ্কার হতে শুরু করে দিয়েছে। তবে মুম্বাই ও মহারাষ্ট্রজুড়ে রাতভর প্রবল বৃষ্টিপাত চলবে। ধীরে ধীরে তেজ কমছে নিসর্গের। সন্ধ্যের মুখে আরও তেজ কমে যাবে নিসর্গের।

দুপুর থেকেই বাণিজ্যনগরীতে তাণ্ডব দেখিয়েছে ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’ (Nisarga)। হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস মতোই মু্ম্বইয়ের কাছে রায়গড় জেলার আলিবাগের রত্নগিরিতে ল্যান্ডফল হয় দুপুরে। ঝড়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে চলে বৃষ্টি। তবে দুপুরের পর থেকে ক্রমেই শক্তি হারাতে শুরু করে এই সুপার সাইক্লোন। সন্ধের পর থেকেই রাতে এর জেরে ভারী বৃষ্টি হওয়ার পূর্বাভাস দিয়েছে মৌসম ভবন। মুম্বই ছাড়াও থানে, পুণে, রায়গড়, পালঘর, রত্নগিরি, সিন্ধুদূর্গ এইসব জেলায় ২০০ মিলিমিটারের বেশি বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনার কথা জানায় হাওয়া অফিস।

আরও পড়ুন: পুলওয়ামায় পুলিশের গুলিতে নিকেশ ‘ফৌজি ভাই’ সহ ৩ জইশ জঙ্গি

ইতিমধ্যেই ঘূর্ণিঝড়ে চোখ রাঙানি কেটে অনেকটাই পরিষ্কার হয়েছে মুম্বইয়ের আকাশ। তবে আবহবিদদের মতে, প্রকৃতিই যেন রক্ষা করল মুম্বইকরদের। যেভাবে ভৌগলিক পরিবেশের কারণে আরব সাগরের ঘূর্ণিঝড় চলে যায় ওমান উপসাগরের দিকে এবারেও নিসর্গ জেরে তেমন দাপট দেখতে হয়নি মুম্বইবাসীদের। তার আগেই শক্তি হারিয়েছে এই সুপার সাইক্লোন। কিন্তু ক্ষয়ক্ষতি হয়নি তা নয়, ঘূর্ণিঝড়ের দাপটে উপড়ে গিয়েছে অসংখ্য গাছ, বিদ্যুতের খুঁটি। শহর জুড়ে ব্যহত হয়েছে ইন্টারনেট (Internet) পরিষেবা।

তবে ঝড়ের দাপটে না হোক মুম্বইবাসী যে বৃষ্টির জেরে নাকাল হবে সেই আশঙ্কা রয়েছে। কারণ বেশ কিছু এলাকায় এখনই জল জমেছে। আবহাওয়াবিদদের পূর্বাভাস মেনে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টি হলে তাতে রক্ষে পাবে না মুম্বই। বানভাসী অবস্থা দেখা দেবে স্বপ্নের শহরে।

আরও পড়ুন: করোনায় মৃতের অন্ত্যেষ্টিতে হামলা, আধপোড়া দেহ নিয়ে পালাতে হল পরিবারকে

Gmail