ফুসফুসে সংক্রমণ! প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির শারীরিক অবস্থার অবনতি, জানাল হাসপাতাল

প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়েছে। তাঁর ফুসফুসের সংক্রমণের বিভিন্ন লক্ষণ দেখা দিয়েছে। বুধবার সকালে দিল্লির সেনা হাসপাতালের তরফে একথা জানানো হয়েছে।

সাম্প্রতিক মেডিক্যাল বুলেটিনে বলা হয়েছে, ‘মাননীয় প্রণব মুখোপাধ্যায়ের শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়েছে। কারণ তাঁর ফুসফুসে সংক্রমণের বিভিন্ন লক্ষণ দেখা গিয়েছে। তাঁকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়েছে এবং বিশেষজ্ঞ (চিকিৎসকদের) একটি দল তাঁকে পর্যবেক্ষণে রেখেছেন।’অথচ, চিকিৎসায় সাড়া দিচ্ছেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়। উন্নতি হচ্ছে তাঁর স্বাস্থ্য পরিস্থিতির। ট্যুইট করে এমনটাই জানালেন প্রণব পুত্র অভিজিৎ মুখোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন: করোনা আবহে ৩ দিনের মধ্যে ভোটের গাইডলাইন দেবে নির্বাচন কমিশন

এদিন প্রণব-পুত্র অভিজিৎ ট্যুইটারে লেখেন, “আপনাদের শুভকামনায় এবং চিকিৎসকদের কঠিন পরিশ্রমে আমার বাবার অবস্থা এখন স্থিতিশীল। তাঁর শরীরের সমস্ত প্যারামিটারগুলি নিয়ন্ত্রণেই রয়েছে।এরপরেই তিনি লেখেন, ” বাবার শারীরিক অবস্থার উন্নতির লক্ষণ দেখা যাচ্ছে। আমি আপনাদের কাছে অনুরোধ করি, বাবার দ্রুত আরোগ্যের জন্য প্রার্থনা করুন।”

ঘটনার সূত্রপাত গত ৯ অগাস্ট। ওইদিন রাতে বাথরুমে পড়ে গিয়েছিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি৷ পরদিন ডান হাত অবশ হতে থাকায় দ্রুত প্রণব মুখোপাধ্যায়কে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়৷ সেখানে মস্তিষ্কে রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়ায় চিকিত্‍সকরা অপারেশনের সিদ্ধান্ত নেন৷ অপারেশনের আগে করোনা পরীক্ষায় পজিটিভ রিপোর্ট আসে৷ কিন্তু অপারেশন আবশ্যক ছিল।

হাসপাতালের তরফে জানানো হয়, অপারেশনের মাধ্যমে ওই জমাট বাঁধা রক্ত বের করে আনা সম্ভব হয়েছে। কিন্তু কোনও মতেই রক্তক্ষরণ না কমায় নতুন করে জটিলতা তৈরি হয়। সূত্রের খবর, রক্ত তঞ্চন বন্ধ করার ওষুধ খান প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি। তার জেরেই ক্ষতস্থানের রক্তক্ষরণ বন্ধ করতে সমস্যা হচ্ছিল।

আরও পড়ুন: ঘটনা যাই হোক, PM Cares নিয়ে সুুপ্রিম কোর্টে জয় মোদী সরকারের