আজ ফোকাস-এ

নিয়ম ভাঙছেন তারকারাই! এবার কোয়ারেন্টাইন নির্দেশিকা না মেনে রাষ্ট্রপতি ভবনে মেরি কম

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

নয়াদিল্লি:  বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও কেন্দ্রীয় সরকার বিদেশ থেকে দেশে ফেরা ব্যক্তিদের ১৪ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশিকা জারি করলেও, সেটি লঙ্ঘন করে বিতর্কে জড়ালেন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন মহিলা বক্সার তথা রাজ্যসভার সাংসদ এম সি মেরি কম। তিনি জর্ডনের রাজধানী আম্মানে অলিম্পিকের যোগ্যতা অর্জন পর্বে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে গিয়েছিলেন। সেখান থেকে দেশে ফেরেন এ মাসের ১৩ তারিখ। এরপর ১৮ তারিখই রাষ্ট্রপতি ভবনে প্রাতরাশের অনুষ্ঠানে যোগ দেন তিনি। সেখানে ছিলেন অন্যান্য সাংসদরাও। তাঁদের সঙ্গে ছবিও তোলেন মেরি কম।

আরও পড়ুন: Coronavirus Queries: এই নম্বরে হোয়াটস্যাপ মেসেজ করলেই মিলবে উত্তর

ভারতের বক্সিং দলের কোচ স্যান্তিয়াগো নিয়েভা জানিয়েছেন, ‘বক্সিং দলের সঙ্গে যাঁরা জর্ডনে গিয়েছিলেন, তাঁরা প্রত্যেকেই কোয়ারেন্টিনে আছেন। প্রথমে ঠিক হয়েছিল, আমরা ১০ দিন ঘরবন্দি হয়ে থাকব। কিন্তু পরে ঠিক, ১৪ দিন ঘর থেকে বেরোব না। তাই ১০ দিনের পর কীভাবে অনুশীলন করতে হবে, সেটা আমি বক্সারদের জানিয়ে দিচ্ছি। এই সময়সীমা পেরিয়ে যাওয়ার পর ওরা অনুশীলন শুরু করতে পারে। দু’সপ্তাহের মধ্যে যদি করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হয়, তাহলে আমাদের এই পরিকল্পনা অনুযায়ী অনুশীলন চালিয়ে যেতে হবে।’

আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত হয়ে অনুষ্ঠানে যোগদান! গায়িকা কণিকা কাপুরের বিরুদ্ধে এফআইআর করল পুলিশ

কিন্তু কোচের নির্দেশ মানেননি মেরি কম। তিনি সে কথা স্বীকারও করেছেন। রাষ্ট্রপতি ভবনের টুইট করা ছবিতে দেখা যাচ্ছে, বাকি সাংসদদের সঙ্গে দাঁড়িয়ে মেরি কম। ওদিন সেখানে হাজির ছিলেন দুষ্মন্ত সিং। প্রসঙ্গত লখনউয়ে একটি অনুষ্ঠানে গায়িকা কনিকা কাপুরের সঙ্গে দেখা করেন দুষ্মন্ত। কনিকার করোনাভাইরাস পজিটিভ ধরা পড়েছে। তাই বর্তমানে সেল্ফ আইসোলেশনে দুষ্মন্ত।

 

 

 

 

মেরি জানিয়েছেন যে তিনি রাষ্ট্রপতি ভবনে গেলেও দুষ্মন্তের সঙ্গে করমর্দন করেননি। আপাতত বাড়িতেই আছেন ও আগামী কয়েকদিন বাড়িতেই থাকবেন বলে জানিয়েছেন এই বিশ্বচ্যাম্পিয়ন বক্সার।কিন্তু এই মুহুর্তে যখন করোনার প্রকোপ নিয়ে সবাই চিন্তিত, তখন এই ঝুঁকি তিনি কেন নিলেন, সেই নিয়ে উঠছে প্রশ্ন।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

সম্পর্কিত পোস্ট