টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য সম্ভাব্য বিকল্প হিসেবে শ্রীলঙ্কাকেও তালিকায় রাখল বিসিসিআই। সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে যেহেতু স্থগিত হয়ে যাওয়া আইপিএলের বাকি ৩১টি ম্যাচ হবে। তার আগে পিএসএলের ম্যাচও রয়েছে। সে কারণে পিচ এবং আউটফিল্ডের অবস্থা ভাল নাও থাকতে পারে। সেই সমস্যার কথা মাথায় রেখেই শ্রীলঙ্কাকেও বিকল্প হিসেবে তৈরি রাখতে চায় বিসিসিআই।

আরও পড়ুন : শুধু দলত্যাগীরা নন, ভোটে জয়ী BJP প্রার্থীরাও যোগাযোগ করছেন: অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়

এই বিশ্বকাপের আয়োজনের দায়িত্ব রয়েছে বিসিসিআই-এর হাতে। এবং টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য আইসিসি ২৮ জুন পর্যন্ত বিসিসিআই-কে সময় দিয়েছে। বিসিসিআই চেষ্টা করছে, ভারতেই বিশ্বকাপের আয়োজন করার। তবে এখনও পর্যন্ত করোনার জন্য ভারতের যা পরিস্থিতি, তাতে বিকল্প হিসেবেও ভেন্যু ঠিক করে রাখতে হচ্ছে। আসলে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে মাত্র তিনটি মাঠ রয়েছে, শারজা, দুবাই এবং আবুধাবি। এ দিকে শ্রীলঙ্কাতে একাধিক মাঠের বিকল্পও রয়েছে৷

বিসিসিআই সূত্রের খবর, এই বিষয়ে শ্রীলঙ্কা বোর্ডের সঙ্গে কথা চলছে। আসলে বিশ্বকাপের জন্য বিকল্প হিসেবে শুরু থেকেই সংযুক্ত আরব আমিরশাহীকে ঠিক করে রাখা হয়েছিল। হঠাৎ করেই করোনা সংক্রমণের জেরে পিএসএল থেকে আইপিএল– সব টুর্নামেন্টই এখন সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ওখানকার তিনটি মাঠে এতগুলি ম্যাচ  হওয়ার পর পিচ এবং মাঠের আউটফিল্ড, কী অবস্থায় থাকে, সেটাই চিন্তার বড় কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেই কারণেই শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে কথাবার্তা শুরু করেছে বিসিসিআই। তবে সবটাই এখনও প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে।

বিসিসিআই-এর এক কর্তা এক সংবাদসংস্থাকে জানিয়েছেন, ‘এটা ঠিক, সংযুক্ত আরব আমিরশাহীই বিকল্প হিসেবে এগিয়ে রয়েছে। এই নিয়ে এমিরেটস ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে কথাও হচ্ছে। তবে এটাও ঘটনা, আইপিএল ছাড়াও ওখানে আরও কিছু টুর্নামেন্ট হচ্ছে। ফলে, ক্রিকেট বিশ্বকাপের জন্য সেখানকার পিচের অবস্থা ঠিক কী রকম থাকবে, সেটা কারও জানা নেই। সে কারণেই শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গেও কথাবার্তা বলা হচ্ছে। তবে এখনও একেবারে প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে পুরো বিষয়টি।’

আরও পড়ুন : কলকাতার আকাশে ব্যাপক ঝটকা খেল Vistara-র বিমান, আহত বহু যাত্রী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *