Cristiano Ronaldo: US judge dismisses rape lawsuit

Cristiano Ronaldo: রোনাল্ডোর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ খারিজ করল যুক্তরাষ্ট্রের কোর্ট

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

২০১৮ সালে তারকা ফুটবলার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর (Cristiano Ronaldo) বিরুদ্ধে ধর্ষণের (Rape Case) অভিযোগ এনেছিলেন এক মার্কিন মডেল। চার বছর পর সেই অভিযোগ থেকে নিস্তার পেলেন সিআর সেভেন। আদালত এদিন জানিয়ে দেয়, এই অভিযোগ ভিত্তিহীন। এমনকি ওই মডেল যাতে ভবিষ্যতে রোনাল্ডোর বিরুদ্ধে এহেন কোন অভিযোগ না আনতে পারেন তা নিশ্চিত করার নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

নেভাদায় মায়োরগা নামক এক মহিলা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর বিরুদ্ধে কোর্টে ধর্ষণের অভিযোগ এনেছিলেন। তাঁর অভিযোগ ছিল ২০০৯ সালে লস ভেগাসে নাকি তাঁকে ধর্ষণ করেন পর্তুগীজ মহাতারকা। রোনাল্ডোর তরফে ওই মহিলার সঙ্গে যৌন সম্পর্কের কথা আগেই স্বীকার করে নেওয়া হয়েছিল এবং তাঁর মুখ বন্ধ রাখতে তাঁকে তিন লাখ ৭৫ হাজার ডলার দেওয়াও হয়। তবে সম্পর্কটা দুইজনের সম্মতিতেই হয়েছিল বলে জানানো হয়।

আরও পড়ুন: বিশ্বের সবথেকে বড় জার্সি, Guinness World Records-এ নাম তুলল IPL

২০১৮ সালে এই মামলা ঘিরে তোলপাড় পড়ে যায় বিশ্ব ফুটবল দুনিয়ায়। যদিও এই অভিযোগ প্রথম থেকে অস্বীকার করেন রোনাল্ডো। জানান, তাঁকে মিথ্যে মামলায় ফাঁসানোর চেষ্টা হচ্ছে। সিদ্ধান্ত নেন, আইনি পথে লড়াই করবেন তিনি। এমনকি ওই মডেলের ক্ষতিপূরণের দাবিও মেনে নেননি তিনি।

এতদিন এই মামলা চলছিল লস ভেগাসের এক আদালতে। এদিন সেই মামলার শুনানিতেই বিচারপতি রোনাল্ডোকে এই মামলা থেকে সম্পূর্ণ নিষ্কৃতি দেন। জানান, ক্যাথরিনের আনা অভিযোগ ভিত্তিহীন। কোনও তথ্য প্রমাণ নেই। শুধু তাই নয়, ভবিষ্যতে যাতে এই মামলায় ফেররোনাল্ডোকে জড়াতে না পারেন ওই মডেল তাও নিশ্চিত করার নির্দেশ দেয় আদালত। প্রসঙ্গত, মায়োরগা এবং তাঁর উকিল এই রায়ের বিরুদ্ধে সান ফ্রান্সিসকোর নবম যুক্তরাষ্ট্র সার্কিট কোর্টে আপিল করতে পারবেন।

আরও পড়ুন: India Women’s Cricket: মিতালি অবসরে যেতেই বাদ ঝুলন, দলের নেতৃত্বে হরমনপ্রীত

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest