ফের কেঁপে উঠল কলকাতা, দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জায়গায় মৃদু ভূমিকম্প

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

#কলকাতা: সপ্তাহান্তে কেঁপে উঠল কলকাতা৷ আজ বিকেল চারটে পঁয়তাল্লিশ নাগাদ কলকাতা ও সংলগ্ন বেশ কয়েকটি জেলায় কম্পন অনুভূত হয়৷ হাওড়া-সহ দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলার মানুষজন কম্পন অনুভব করেন৷ অনেকে আতঙ্কে বেরিয়ে আসেন রাস্তায়৷

কলকাতার পাশাপাশি কম্পন অনুভূত হয়েছে হাওড়া, হুগলি, বর্ধমান, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া এবং দুই মেদিনীপুরেও। তবে কম্পনের তীব্রতা কম হওয়ায় এবং স্থায়িত্ব কম সময়ের জন্য হওয়ায় কোথাও কোনো ক্ষয়ক্ষতির খবর নেই। রিখটার স্কেলে এর তীব্রতা ছিল ৩.৬। আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, ভূমিকম্পের উৎসস্থল ছিল হাওড়া জেলায় মাটির ১০ কিলোমিটার গভীরে।

কম্পন অনুভূত হয়েছে পশ্চিম মেদিনীপুরের দাঁতন, বেলদা, ঘাটালে। হুগলিতেও কম্পন অনুভূত হয়েছে। কয়েক সেকেন্ডের জন্য এই কম্পন স্থায়ী ছিল। কম্পন টের পেয়েই ঘর-বাড়ি ছেড়ে আতঙ্কে রাস্তায় নেমে আসে মানুষজন।  যদিও ভূমিকম্পের উত্সস্থল এবং কম্পনের মাত্রা সম্পর্কে এখনও বিশেষ কিছু জানা যায়নি। ভূমিকম্পে হতাহতের কোনও খবরও পাওয়া যায়নি।

গত রবিবার গভীর রাতে মৃদু ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছিল পুরুলিয়ার। সেই কম্পনের ফলে তীব্র আতঙ্ক ছড়ায় সাধারণ মানুষের মধ্যে। এর আগে গত ২৬ মে ভূমিকম্প হয়েছিল বাঁকুড়ায়। এত কম সময়ের মধ্যে একই অঞ্চলে বার বার ভূমিকম্প, এটা কী অন্য কোনো মাত্রা বহন করছে। উল্লেখ্য, গত এক-দেড় বছর ধরে বার বার মৃদু ভূমিকম্পে কেঁপে উঠছে মহারাষ্ট্রের পালঘর। এখনও পর্যন্ত সেখানে বড়ো কোনো কম্পনের খবর নেই। এই অঞ্চলও সেই পালঘরের মতো হল কি না, সেটাই ভাবিয়ে তুলছে বিজ্ঞানীদের।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest