All you need to know about Mi-17V5 chopper that crashed with CDS Bipin Rawat on board

Mi-17V-5: রাওয়াতের ভেঙে পড়া কপ্টার রাশিয়ার তৈরি, কী কী বৈশিষ্ট্য রয়েছে এই কপ্টারের?

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

তিন বাহিনীর প্রধান বিপিন রাওয়াতকে নিয়ে তামিলনাড়ুর নীলগিরির জঙ্গলে ভেঙে পড়ল ভারতীয় বায়ুসেনার এমআই- ১৭ভি ফাইভ হেলিকপ্টার (Bipin Rawat Helicopter Crash)৷ হেলিকপ্টারে বিপিন রাওয়াতের সঙ্গে ছিলেন তাঁর স্ত্রী মধুলিকা রাওয়াত এবং সিডিএস-এর নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা সেনা আধিকারিক এবং জওয়ানরা৷ ১৪ অন্যের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১৩ জনের। দুর্ঘটনার পরই তার কারণ জানতে উচ্চ পর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷ আর দুর্ঘটনার পর থেকেই চর্চায় রাশিয়ায় তৈরি এমআই-১৭ভি ফাইভ (MI-17V5 Helicopter) মডেলের এই হেলিকপ্টার৷

  • রাশিয়ায় তৈরি এই সেনা কপ্টার এমআই-৮-এর উন্নততর সংস্করণ। এই কপ্টারের বিশেষত্ব হল এর ইঞ্জিন অনেক বেশি শক্তিশালী। অধিক ভার বহনে সক্ষম। রাতের অন্ধকারে অনায়াস গতিবিধি এবং উন্নততর নিরাপত্তা ব্যবস্থার জন্য সুনাম রয়েছে এই কপ্টারের।
  • এমআই-১৭-ভি-৫-এর বৈশিষ্ট্য বলছে, এই কপ্টার একমাত্র অতি উচ্চতায় উড়তে অসুবিধায় পড়ে। তা ছাড়া যে কোনও ধরনের ভৌগলিক এলাকায় এর সহজ যাতায়াত। রাওয়তের কপ্টার যেখানে ভেঙে পড়ে তার উচ্চতা অবশ্য এমন কিছু বেশি ছিল না বলেই জানা গিয়েছে।
  • রাওয়তের কপ্টারে মোট ১৪ জন আরোহী ছিলেন। সাধারণ কপ্টারের হিসেবে সংখ্যাটা বেশি। তবে ‘ভি ৫’ সর্বাধিক ২৪ জন আরোহীকে বহন করতে পারে। এর ওজন বহন করার মোট ক্ষমতা সাত হাজার কেজি। এর মধ্যে ভিতরে চার হাজার কেজি। বাইরে ঝুলিয়ে নিতে পারে আরও তিন হাজার কেজি।
  • এই অত্যাধুনিক চপারে গ্লাস ককপিট রয়েছে, যার মধ্যে মাল্টি ফাংশন ডিসপ্ল, নাইট ভিশন ইক্যুইপমেন্ট, ওড়ার সময় আবহাওয়ার পরিস্থিতি জানানোর জন্য রাডার এবং অটো পাইলট সিস্টেম রয়েছে৷
  • এ ছাড়াও সামরিক ক্ষেত্রে ব্যবহৃত এই হেলিকপ্টারে শত্রুপক্ষের উপরে হামলা চালাতে শুতার্ম-৫ মিসাইল, এস-এইট রকেট, একটি তেইশ এমএম মেশিন গান, পিকেটি মেশিন গান এবং একেএম সাবমেরিন মেশিন গানও থাকে৷ যার ফলে এই কপ্টার থেকেই শত্রুপক্ষের সেনা, সশস্ত্র যান, স্থলভূমিতে থাকা কোনও নিশানাকে সহজেই খতম বা ধ্বংস করা যায়৷
  • হেলিকপ্টারের গুরুত্বপূর্ণ অংশগুলি বিশেষ ধরনের মোড়কে ঢাকা থাকে৷ বিস্ফোরণ থেকে রক্ষা করার জন্য এমআই-১৭ভি ফাইভ কপ্টারের জ্বালানির ট্যাঙ্ক পলিউরেথেনের আস্তরণ থাকে৷ একই ভাবে হেলিকপ্টারের ইঞ্জিনকে সুরক্ষিত রাখতেও বিশেষ ইনফ্রারেড সাপ্রেসরের ব্যবহার করা হয়৷ হেলিকপ্টারে রয়েছে জ্যামারও৷
  • এমআই-১৭ভি ফাইভ হেলিকপ্টার ঘণ্টায় সর্বোচ্চ আইশো কিলোমিটার গতিতে উড়তে পারে৷ একটানা ৫৮০ কিলোমিটার উড়তে সক্ষম এই কপ্টার৷ ৬০০০ ফুট উচ্চতায় উড়তে পারে এই রাশিয়ায় তৈরি এমআই-১৭ভি ফাইভ৷ এমন অত্যাধুনিক এবং বিশ্বস্ত হেলিকপ্টার কীভাবে ভেঙে পড়ে এই ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটল, তা নিয়ে ধোঁয়াশায় রয়েছেন প্রাক্তন সেনাকর্তা এবং বিশেষজ্ঞরাও৷
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest