করোনা মোকাবিলায় এবার পাতে হাজির ‘মাস্ক পরোটা’! চেখে দেখবেন নাকি?

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

করোনা পরবর্তী সময়ে ফ্যাশন থেকে শুরু করে খাওয়া—সবেতেই চলে এসে করোনার প্রভাব। এবার তার প্রমাণ মিলল মাদুরাইয়ের হোটেল টেম্পলে। মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরি করতে এই হোটেলে তৈরি হচ্ছে মাস্ক পরোটা।

তামিল নাড়ুতে হু হু করে বাড়ছে করোনা–আক্রান্তের সংখ্যা। সেই সঙ্গেই বাড়ছে মৃত্যুও। সংক্রমণ রুখতে রাজ্যের বিভিন্ন স্থানে ফের কড়া লকডাউন ঘোষণা করেছে মুখ্যমন্ত্রী ই পালানিস্বামীর সরকার। চেন্নাই, মাদুরাইয়ের মতো কয়েকটি অঞ্চলে সংক্রমণের হার মাত্রাতিরক্তি। তা সত্ত্বেও মুখে মাস্ক পরতে অনীহা মাদুরাইয়ের বাসিন্দাদের। তাঁদের সেব্যাপারে উৎসাহী করতে এবার এগিয়ে এল একটি রেস্তোরাঁ। মাস্কের ডিজাইনে পরোটা তৈরি করে গ্রাহকদের বিক্রি করছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: বব কাট হেয়ার স্টাইলে নজর কাড়ছে তামিল হস্তিনী, আদুরে ভিডিওতে মজে নেটিজেনরা

রেস্তোরাঁর ম্যানেজার পুবালিঙ্গম বললেন, ‘‌মাদুরাইয়ের মানুষরা খুব একটা মাস্ক পরছেন না। সেজন্যই আমরা মাস্কের মতো দেখতে পরোটা বানিয়েছি, যাতে মানুষ সতর্ক হন।’‌ রেস্তোরাঁ কর্তৃপক্ষের আশা, খাবার অর্ডার দেওয়ার পর প্লেটে মাস্কের মতো ডিজাইনের পরোটা দেখলে গ্রাহকরা হয়ত সচেতন হবেন যে এখনকার দিনে মুখে মাস্ক পরা কতটা জরুরি। এবং তারপর হয়ত মাস্ক পরতে শুরু করবেন তাঁরা।

বিজ্ঞানীরা নতুন গবেষণায় দাবিও করেছেন, যে করোনাভাইরাস বাতাসবাহিত ভাইরাস। তাই মুখ, নাক ঢেকে রাখা অত্যন্ত জরুরি, বিশেষ করে ভিড়ে ঠাসা বা বদ্ধ জায়গায়। গণ পরিবহনের মতো স্থানেও যেখানে বাতাস চলাচলের সুযোগ কম সেখানেও মাস্ক পরা জরুরি বলেই পরামর্শ দিয়েছেন বিজ্ঞানীরা।‌

তবে ট্রেন্ডি ও আউট অফ বক্স খাবার তৈরির ক্ষেত্রে এটাই প্রথম অভিজ্ঞতা নয় কে এল কুমারের। সাক্ষাত্‍কারে তিনি জানান, ‘আমি সব সময়েই পপ কালচার ট্রেন্ডের কথা মাথায় রেখেই নতুন নতুন খাবার তৈরির দিকে নজর দিয়েছি। ২০০২ সালে রজনীকান্তের বাবা ছবিটি মুক্তি পাওয়ার পর আমার জীবনের প্রথম দোসা ইনোভেশন করি। তৈরি করি বাবা পনির মসালা দোসা। সেই সঙ্গে ছিল সবজি কোর্মা যেটি সাজানো হত রজনীকান্তের সিগনেচার হাতের ভঙ্গিতে।’

আরও পড়ুন: হায়দ্রাবাদী ছাড়া সমস্ত বিরিয়ানিই আসলে পোলাও! রেস্তোরাঁর দাবিতে শুরু নেটযুদ্ধ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest