আজ ফোকাস-এ

করোনার জের, শান্তিনিকেতনে বাতিল বসন্ত উৎসব

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

কলকাতা: করোনার আতঙ্কের ছাপ এসে পড়ল এবার শান্তিনিকেতনের বসন্ত উৎসবেও। ইউজিসির নির্দেশে এবার শান্তিনিকেতনেও বাতিল ঘোষিত হল বসন্ত উৎসব।

শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বৈঠকের পর একথা জানিয়ে দিয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রের খবর, UGC-র তরফে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে সমস্ত বড় জমায়েত স্থগিত করতে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। সেই পরামর্শ মেনেই এবার বসন্তোৎসব বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কতৃপক্ষ।

চলতি বছর বিশ্বভারতীর বসন্তোৎসব পালন নিয়ে প্রথম থেকেই দড়িটানাটানি চলছিল। প্রতি বছর দোলে বিশ্বভারতীতে হাজির হন কয়েক লক্ষ সাধারণ মানুষ। বিশ্বভারতী ক্যাম্পাসেই দোলে মেতে ওঠেন তাঁরা। প্রতি বছর সেই সংখ্যাটা ক্রমশ বাড়ছিল। যার জেরে গত বছর দোলের দিন বিশ্বভারতীতে পদপিষ্ট হওয়ার মতো পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল। এবছর বিশ্বভারতীর দোলে বহিরাগতরা অংশগ্রহণ করতে পারবেন না বলে জানিয়েছিল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। পরে রাজ্য সরকার বিশ্বভারতীর পাশে দাঁড়ালে পৌষ মেলার মাঠে দোল উৎসবের আয়োজনের সিদ্ধান্ত হয়। সেই মতো মঞ্চ বাঁধার কাজও প্রায় শেষ হয়ে গিয়েছে। কিন্তু শেষ বেলায় করোনাভাইরাস মাটি করে দিল যাবতীয় আয়োজন।

আরও পড়ুন: মেয়েদের খোলা পিঠে লেখা অশ্লীল শব্দ! রবীন্দ্রভারতীর বসন্ত উৎসব ঘিরে বিতর্ক

বিশ্বভারতীর দোল তো শুধুই বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে সীমবদ্ধ থাকে না। কবিগুরুর হাতে তৈরি প্রতিষ্ঠানটির দ্বার ওইদিনের জন্য উন্মুক্ত হয়ে যায় সকলের জন্য। সবার রঙে রং মেলানোর ডাক পাঠায় মেলার মাঠ। দেশি-বিদেশি পর্যটকদের কাছে যা অন্যতম আকর্ষণের বিষয়। অনেকেই শুধুমাত্র এই উৎসবে শামিল হবেন বলেই একবেলার জন্য হলেও, ছুটে যান শান্তিনিকেতনে।

কিন্তু এছর পরিস্থিতি ভিন্ন। নোভেল করোনা ভাইরাস যেভাবে পৃথিবী জুড়ে থাবা বসাচ্ছে, তাতে নিরাপদ নয় কোনও জায়গাই। বিশেষত সংস্পর্শেই যেখানে এই জীবাণু সংক্রমণের আশঙ্কা, সেখানে মানুষে-মানুষের স্পর্শেও ঝুঁকি থেকে যায়। সেই কারণেই ইউজিসি’র এমন নির্দেশিকা বলে জানাচ্ছেন উপাচার্য। দোল খেলতে গিয়ে যাতে কেউ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত না হন, সেটাই মূল লক্ষ্য প্রশাসনের। তাই এমন বিধিনিষেধ।

আরও পড়ুন:হোলির রঙই এই ছবিগুলোর পরিচয়, রইল সেরা দশ হিন্দি গানের খোঁজ…

ইতিমধ্যে দোলের মিলনে অংশগ্রহণ করবেন না বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এর পর একে একে সেই পথেই হেঁটেছেন কেন্দ্রের একাধিক নেতামন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীর দেখানো পথেই হাঁটল কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় বিশ্বভারতী।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest