#World Cup 2019: ধোনির কিপিং গ্লাভসে সেনাবাহিনীর প্রতীক, সরানোর নির্দেশ আইসিসির

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

#সাউদাম্পটন: দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে ভারতীয় উইকেটরক্ষক মহেন্দ্র সিংহ ধোনির গ্লাভসের উপরে দেখা গিয়েছিল ফৌজি চিহ্ন। এ বার তা নিয়ে নিজেদের আপত্তি জানাল ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা আইসিসি।ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা বিসিসিআইকে নির্দেশ দিয়েছে ধোনির গ্লাভস থেকে সেনাবাহিনীর প্রতীক সরানোর জন্য।

সাউদাম্পটনে বুধবার দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ভারতের ফিল্ডিংয়ের সময় দেখা যায়, ধোনির গ্লাভসের উপরে ডানাওয়ালা ছুরি প্রতীক চিহ্ন রয়েছে। যাকে সেনাকর্মীরা বলে থাকেন ‘ফ্লাইং ড্যাগার’ বা ‘বলিদান’। এটি ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্যারা স্পেশ্যাল ফোর্সের পরিচয়চিহ্ন। আসলে ধোনি ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্যারাশুট রেজিমেন্টের সাম্মানিক লেফটেন্যান্ট কর্নেল। দক্ষিণ আফ্রিকা ইনিংসের ৩৯.৩ ওভারে যুজবেন্দ্র চহালের বলে আন্দাইল ফেহলুকওয়েও-কে স্টাম্প করেন ধোনি। তখনই টিভি ক্যামেরা ধোনিকে  ধরলে দেখা যায়, ভারতীয় উইকেটকিপারের দুই গ্লাভসের উপরেই সাঁটা রয়েছে সেই বলিদান চিহ্ন। যা ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্যারা স্পেশ্যাল কমান্ডোদের ব্যাজ।

ম্যাচে সেনার প্রতীক আঁকা উইকেটকিপিং গ্লাভস পরে সেনাদের উৎসর্গ করেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। স্বাভাবিকভাবেই নেটিজেনরা কুর্নিশ জানিয়েছেন মাহিকে। ধোনির এই ভাবমূর্তিতে, সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো উচ্ছ্বসিত হয়ে পড়েন মাহিভক্তরা। কিন্তু ব্যাপারটা মোটেই ভালোভাবে নেয়নি আইসিসি। আইসিসির জেনারেল ম্যানেজার ফর স্ট্র্যাটেজিক কমিউনিকেশনস, ক্লেয়ার ফার্লং জানিয়েছেন, ‘‘আমরা বিসিসিআইকে অনুরোধ করেছি ধোনির গ্লাভস থেকে যেন সেই প্রতীক সরিয়ে দেওয়া হয়।” তিনি আরও বলেন, “আইসিসি এমন কোনও বিষয়কে উৎসাহ দেয় না যেখানে বিশেষ কোনও রাজনৈতিক, ধর্মীয় ও জাতিগত বিষয় যুক্ত থাকে। আর তাই বিসিসিআইকে এই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।” আইসিসির এই নির্দেশেরও সমালোচনা করেছেন নেটিজেনরা। তাঁদের বক্তব্য, যখন অস্ট্রেলিয়া বা ইংল্যান্ড কোনও নিয়ম বিরুদ্ধ কাজ করে তখন কোথায় থাকে আইসিসি। ভারতের বেলাতেই তাদের দেখা যায়।

২০১১ সালে ধোনিকে সাম্মানিক প্যারা মিলিটারি ফোর্সের সম্মান দেওয়া হয়েছিল। তিনি প্যারা মিলিটারিদের সঙ্গে কিছুদিন প্র্যাকটিসও করেছিলেন। বহু জায়গায় নিজের সেনাবাহিনীতে যোগ দেওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন মাহি। এমনকী পুলওয়ামা হামলার পর রাঁচিতে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে খেলতে নামার আগে দলের সবাইকে মিলিটারির জংলা টুপি দিয়েছিলেন ধোনি। সেই টুপি পরেই খেলতে নেমেছিল টিম ইন্ডিয়া। সেই সময় এই ঘটনা নিয়ে প্রতিবাদ জানিয়েছিল পাকিস্তান।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest