Want to change look of your house? Take a tour of these places of kolkata city

Home Decor: ঘরের ভোল বদলাতে চান? ঘুরে দেখুন শহরের এই জায়গাগুলি

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

‘ঘর হল মানুষের মনের আয়না’। আপনার অন্দরমহল যদি হয় সুদৃশ্য, তবে শরীর মনও থাকবে ভাল। এখনকার প্রজন্ম তাই ঘর সাজানোর দিকে ঝুঁকেছে। কিন্তু দেখলে হবে খরচা আছে। আর বাঙালি সব সময়ই খরচের চিন্তায় ভোগে। বাস্তবিক, ঘর সাজানোর কথা মনে করলেই মধ্যবিত্ত কলকাতাবাসীর কপালে ভাঁজ পড়ে। অথচ এই কলকাতাতেই এমন অনেক জায়গা রয়েছে যেখানে অল্প ব্যয়েই আপনি অন্দরসজ্জার টুকিটাকি কেনাকাটা করতে পারবেন নিশ্চিন্তে।

নিউ মার্কেট

ঘর সাজানোর জন্য নিউ মার্কেটের পুরনো দোকানে আসতেই পারেন। বাইরে থরে থরে সফট টয় বিক্রি হতে দেখে অনেকেই মানতে চান না যে নিউ মার্কেটের ভিতরে ঘর সাজানোর জিনিসপত্রের একাধিক দোকান রয়েছে। যেখানকার জিনিস চোখ জুড়িয়ে দেবে।খরচও বেশি হবে না ।ব্যতিক্রমী দুয়েকটি জিনিসেই ঘরের ভোল বদলে দিতে পারে। এমন পুরনো কয়েকটি দোকান আজ রয়েছে নিউ মার্কেটে।

আরও পড়ুন: ভাতের ফ্যান ফেলে দেন? এই সব উপকারিতা জানলে এই কাজ ভুলেও করবেন না

গড়িয়াহাট

চিনেমাটির জিনিসই হোক কিম্বা বিছানার চাদর। বালিশের ওয়াড়, ফ্যাশনেবল পর্দা, দেওয়ালে টাঙানোর ছবি অথবা হরেক রকমের আলো— সব পেয়ে যাবেন গড়িয়াহাটের বাজার চত্বরে। জানেন না হয়ত আপনার পছন্দের বহু তারকাই বছর ধরে এই গড়িয়াহাটে খুঁজে নেন নিজের নিজের পছন্দের ঘর সাজানোর জিনিস। সারা বাংলা তো বটেই, দেশের নানা প্রান্ত থেকে বিভিন্ন কারিগরেরা তাঁদের নিজস্ব কাজ বিক্রির জন্য এখানে পাঠিয়ে দেন। জহুরির চোখ থাকলে এসব জিনিসের মধ্যে থেকে আপনি খুঁজে পেয়ে যাবেন অল্প ব্যয়েই ঘর সাজানোর এমন অনেক জিনিস।

দক্ষিণাপণ

অন্দরসজ্জায় শৈল্পিক ছোঁয়া পেতে চাইলে গড়িয়াহাট থেকে অল্প একটু দূরে যেতে হবে দক্ষিণাপণ শপিং কমপ্লেক্স। এখানে বিভিন্ন রাজ্য সরকারের অনুদানপ্রাপ্ত দোকান রয়েছে। ফলে সারা ভারতবর্ষের ছোঁয়া আপনি পেতে পারেন সহজেই। গুজরাটি কারুকাজের পর্দা, ওয়ালহ্যাংগিং, ওড়িশার বেশ কিছু অন্দরসজ্জার জিনিস, কাশ্মীরি কাজের বাক্স, চাদর, বাঙালি ছৌ নাচের মুখোশ, রাজস্থানি কাজের বিছানার চাদর, কুশন, ছোট আলমারি, পূর্ব ভারতের মাদুরের তৈরি ছোটখাটো জিনিস, দক্ষিণ ভারতীয় আয়না সব পেয়ে যাবেন এই চত্বরে। ঘরে ব্যতিক্রমী আবেদন আনতে চাইলে কলকাতার মানুষকে দক্ষিণাপণে একবার পা রাখতেই হবে।

আরও পড়ুন: Healthy Habits: সুস্থ থাকতে ঠিক কতদিন অন্তর বিছানার চাদর বদলানো উচিত?

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest