Earthquake in Bangladesh tremor felt in Kolkata also

Earthquake: বাংলাদেশে ভূমিকম্প, শনি সকালে কেঁপে উঠল উত্তরবঙ্গ – কলকাতাও

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest

ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল বাংলাদেশ। এদিন স্থানীয় সময় সকাল ৯.৩৫ মিনিট নাগাদ ঢাকায় কম্পন অনুভূত হয়। জানা গিয়েছে, রিখটার স্কেলে কম্পনের মাত্রা ৫.৫ ছিল। বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা সহ কুমিল্লা, রাজশাহী, সিলেট, রংপুর, চুয়াডাঙা, নোয়াখালি, কুষ্টিয়ায় কম্পন অনুভূত হয়েছে বলে খবর।

ন্যাশনাল সেন্টার ফর সিসমোলজির তরফে খবর, সকাল ৯টা ৫ মিনিট নাগাদ কেঁপে ওঠে বাংলাদেশে। গভীরতা মাটি থেকে ৫৫ কিলোমিটার নিচে। ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল রামগঞ্জে বলে জানান আবহাওয়া অফিসের কর্তা রবিউল হক। রিখটার স্কেলে ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৫.৬। রাজশাহী, সিলেট, রংপুর, চুয়াডাঙ্গা, নোয়াখালি, কুষ্টিয়ায় কম্পন অনুভূত হয়।

ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে কলকাতাতেও। এ ছাড়া, উত্তরবঙ্গের একাধিক জেলা, উত্তর ২৪ পরগনা, হাওড়া এবং হুগলিতেও শনিবার সকালে ভূমিকম্প টের পাওয়া গিয়েছে। বিশেষত ডুয়ার্সে তুলনামূলক বেশি কম্পন অনুভূত হয়। এছাড়া বসিরহাট, হিঙ্গলগঞ্জেও মৃদু কম্পন অনুভূত হয়।  তবে ভূমিকম্পে এখনও ক্ষয়ক্ষতির কোনও খবর নেই। হতাহতের খবরও পাওয়া যায়নি। ভূমিকম্প হয়েছে ত্রিপুরা, মিজোরামের বেশ কিছু এলাকায়।

পাশাপাশি লাদাখেও অনুভূত হয়েছে কম্পন। লাদাখে স্থানীয় সময় সকাল ৮.২৫ মিনিট নাগাদ কম্পন অনুভূত হয়। লাদাখে কম্পনের তীব্রতা রিখটার স্কেলে ছিল ৩.৪।  ইউনাইটেড স্টেটস জিওলজিক্যাস সার্ভের তথ্য অনুযায়ী বাংলাদেশে কম্পনের  মাত্রা ৫.৫ ছিল। এদিকে, জার্মান রিসার্চ সেন্টার ফর জিও সায়ান্সের তথ্য বলছে, কম্পনের গভীরতা ছিল ১০ কিলোমিটার। তথ্য বলছে, লেহ ও লাদাখ, দুই এলাকাই পড়ে সিসেমিক জোন ৪ এর আওতায়। সেই জায়গা থেকে এই এলাকাগুলিতে কম্পনের ঝুঁকি থেকে যায়। হিমালয় সংলগ্ন এলাকার এই দুই অঞ্চল ঘিরে কম্পনের আশঙ্কা থেকে যায়।

 

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on telegram
Share on whatsapp
Share on email
Share on reddit
Share on pinterest